যেভাবে চিনবেন নকল ওষুধ

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | লাইফস্টাইল ডেস্ক


সাধারণ ডাক্তারকে দেখাতে বা ওষুধ কিনতে খুব বেশি হিসাব কেউ কষে না। সুস্থ থাকার জন্য একজন চিকিৎসকের প্রতি রয়েছে যে কোনো ব্যক্তির অঢেল বিশ্বাস। এ ছাড়া কোনো ফার্মেসিতে ওষুধ কিনতে গেলেও আমরা খুব বেশি গড়িমসি করি না। আর এখানেই ঘটছে বিপত্তি।

বাজারে আসল ওষুধের ভিড়ে রয়েছে নকল ওষুধ, যা আপনার প্রাণনাশ থেকে শুরু বড় ধরনের বিপত্তির কারণ হতে পারে। তাই আসল ওষুধ চেনা জরুরি।

আসুন জেনে নিই কীভাবে চিনবেন আসল ওষুধ-

ওষুধের মোড়ক

ওষুধ কেনার আগে প্রথমেই (বিশেষ করে বোতলজাত ওষুধের ক্ষেত্রে) দেখে নিন সিলের কোথাও কোনো সমস্যা আছে কিনা। ওষুধের ক্ষেত্রে প্যাকেজিং দেখে নিতে হবে। বানান, রং, আগে যদি সেই ওষুধ কিনে থাকেন, তার সঙ্গে মোড়কটি মিলিয়ে নিতে হবে কোনো সংশয় হলেই।

মেয়াদোত্তীর্ণ

ওষুধ কেনার সময় সবচেয়ে বেশির নজর দিতে হবে ওষুধের মেয়াদের দিকে। কারণ মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধ হতে পারে মৃত্যুর কারণ।

ভাঙা অংশ

ওষুধের কোথাও কোনো ভাঙা অংশ রয়েছে কিনা, গুঁড়ো ওষুধ হলে, অতিরিক্ত পরিমাণে দেয়া রয়েছে কিনা-সেগুলো মিলিয়ে নিতে হবে পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে।

ক্রিস্টাল

ওষুধটি ক্রিস্টালের (কেলাসাকার) মতো হলে, সে ক্ষেত্রে আগের কেনা ওষুধের মতোই কঠিন বা নরম কিনা, কোথাও ফোলা অংশ বা দাগ রয়েছে কিনা-এগুলোও খতিয়ে দেখে নেয়া প্রয়োজন।

দাম হেরফের

ওষুধের দাম অসম্ভব বেশি বা কম হলে সে ক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ নেয়া জরুরি। ওষুধ ক্ষতিকারক বা জাল কিনা, না অন্য কোনো কারণে দাম বেড়েছে বা কমেছে কিনা, তা দেখতে হবে। কারণ ভেজাল ওষুধেই সবচেয়ে বেশি দামের হেরফের হয়।

চিকিৎসকের পরামর্শ

ওষুধ খাওয়ার পর আচমকা শরীর খারাপ হলে বা অ্যালার্জি হলে বা কোনো রকম অসুবিধা হলে প্রথমেই চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। প্রয়োজনে সেই ওষুধ খাওয়া বন্ধ করুন।


ফ্লাইট বিলম্ব জানাতে পারবে গুগল অ্যাসিস্টেন্ট
Date: ডিসেম্বর ২২, ২০১৮
ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | তথ্য-প্রযুতি ডেস্ক


শিগগিরই ফ্লাইট বিলম্ব জানাতে পারবে গুগল অ্যাসিস্টেন্ট। এয়ারলাইনের ঘোষণার আগেই ফ্লাইট ডেটা এবং মেশিন লার্নিংয়ের মাধ্যমে গ্রাহকের ফোনে ফ্লাইট বিলম্বিত হবে কিনা তা জানান হবে।

গুগলের পক্ষ থেকে বলা হয়, যখন তাদের অ্যালগরিদম ধারণা করবে ফ্লাইট বিলম্বিত হবে তখনই গ্রাহকের ফোনে নোটিফিকেশন দেয়া হবে। ‘এই বছরের শুরুতে আমরা ফ্লাইড বিলম্ব বিষয়ে আমাদের পূর্ব ধারণা জানাতে শুরু করি।

গুগল ফ্লাইট অপশনে গিয়ে একজন ব্যবহারকারী যখন ফ্লাইটের অবস্থা সম্পর্কে ধারণা চান, আমরা সে ক্ষেত্রে শতকরা ৮৫ ভাগ নিশ্চিত হলেই কেবল ধারণা দেই যে ফ্লাইটটি বিলম্বিত হতে যাচ্ছে।’

‘এয়ারলাইনের ঘোষণার আগেই আমরা ফ্লাইটের অবস্থার তথ্য এবং মেশিন লার্নিং ব্যবহার করে এ ধারণা করে থাকি,’। বলা হয় গুগলের ঘোষণায়।

গুগলের পক্ষ থেকে আরও বলা হয়, ‘আপনি বলতে পারেন, ‘হেই গুগল, আমার ফ্লাইট কী ঠিক সময়ে আছে?’ বা ‘হেই গুগল, আমেরিকান এয়ারলাইন্সের ফিলাডেলফিয়া থেকে ডেনভারের ফ্লাইটের অবস্থা কী?’

‘সামনের কয়েক সপ্তাহ ধরে আমরা যদি বুঝতে পারি কোন ফ্লাইট বিলম্বিত হবে তাহলে অ্যাসিস্টেন্ট সক্রিয়ভাবে আপনার ফোনে নোটিফিকেশন দেবে এবং বিলম্বের কারণ জানাবে, যদি সে তথ্যটি আমরা ইতিমধ্যেই পেয়ে থাকি।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

সরাসরি>>সিলেটের আলিয়া মাদরাসা মাঠের জনসভায় বক্তব্য রাখছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

Posted by insaf24.com on Saturday, December 22, 2018