গভীর রাতে হোটেলে মেয়র আরিফের অভিযান

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


গভীর রাতে সিলেট নগরীর সোবহানীঘাটস্থ একটি রেস্টেুরেন্টে অভিযান চালিয়েছেন সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। বুধবার (০৯ জানুয়ারি) দিবাগত রাত ১২টার দিকে সোবহানীঘাট পয়েন্টে ইবনে সিনা হাসপাতাল সংলগ্ন পাহাড়িকা রেস্টুরেন্টে এ অভিযান চালান তিনি।

জানা গেছে, রাত ১২টার দিকে উপশহর থেকে ফিরছিলেন মেয়র আরিফ। সোবহানীঘাট পয়েন্টে আসামাত্র তিনি দেখেন একটি রেস্টুরেন্টের ময়লা পানি রাস্তার উপর ফেলা হচ্ছে। সাথে সাথে তিনি গাড়ি থেকে নেমে মার্কেটের আন্ডারগ্রাউন্ডের রেস্টুরেন্টে ঢুকেন।

তখন তিনি মার্কেটের আন্ডারগ্রাউন্ডে পার্কিং বন্ধ করে রেস্টুরেন্ট পরিচালনার পর্যাপ্ত কাগজপত্র আছে কিনা সেটি জানতে চান। কিন্তু তখন রেস্টুরেন্ট কর্তৃপক্ষ কোন ধরনের কাগজ দেখাতে ব্যর্থ হয়। এসময় মেয়র রেস্টুরেন্ট বন্ধ রাখার নির্দেশ দেন এবং পর্যাপ্ত কাগজপত্র নিয়ে সিটি কর্পোরেশনে যোগাযোগ করার জন্য বলেন।

এ ব্যপারে মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, রেস্টুরেন্টের ময়লা পানি পিচ রাস্তার জন্য ক্ষতিকর। রাতের বেলা রাস্তায় এসব পানি ফেলা হচ্ছে দেখে গাড়ি থামিয়ে বিষয়টি খেয়াল করি। পরে মার্কেটের আন্ডারগ্রাউন্ডে পরিচালিত রেস্টুরেন্টটির কাগজপত্র দেখতে চাইলে তারা কিছুই দেখাতে পারেন নি।


ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্স

ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্সদেশের প্রথম ইসলামী ঘরানার অনলাইন পত্রিকা ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকমের আয়োজনে শুরু হতে যাচ্ছে স্বল্পমেয়াদী সাংবাদিকতা কোর্স।অংশগ্রহণ করতে যোগাযোগ করুন এই নাম্বারে-০১৭১৯৫৬৪৬১৬এছাড়াও সরাসরি আসতে পারেন ইনসাফ কার্যালয়ে।ঠিকানা – ৬০/এ পুরানা পল্টন ঢাকা ১০০০।

Posted by insaf24.com on Monday, October 29, 2018


বোল্টনের ‘ইসরাইলি মেসেজ’ প্রত্যাখ্যান করলেন এরদোগান
জানুয়ারি ০৯, ২০১৯
ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | মুসলিম বিশ্ব ডেস্ক


মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জন বোল্টন সিরিয়ার ওয়াইপিজি কুর্দি গেরিলাদের সুরক্ষা দেয়ার বিষয়ে তুরস্কের প্রতি যে শর্ত দিয়েছেন তা প্রত্যাখ্যান করেছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোগান। তিনি বলেছেন, এই বক্তব্য মূলত ইহুদিবাদী ইসরাইলের এবং আংকারা তা গ্রহণ করবে না।

এরদোগান আরো বলেছেন, “ইসরাইলের হয়ে বোল্টন এ ধরনের শর্ত দিয়ে বড় ভুল করেছেন এবং তুরস্কের কাছে তা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। এ ইস্যুতে আমরা কোনো আপোশ করতে পারব না। পিকেকে, ওয়াইপিজি, ওয়াইপিডি এবং দায়েশের মধ্যে সামান্যতম পার্থক্য নেই।”

মঙ্গলবার (০৮ জানুয়ারি) রাজধানী আংকারায় জাতীয় সংসদে নিজ দল জাস্টিস অ্যান্ড ডেভলপমেন্ট পার্টির এমপিদের উদ্দেশে দেয়া বক্তৃতায় এসব কথা বলেন এরদোগান। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সিরিয়া থেকে সেনা প্রত্যাহারের পরিকল্পনা জটিল করার জন্য বোল্টনকে অভিযুক্ত করেন এরদোগান।

বোল্টন গত রোববার ইসরাইল সফরের সময় সিরিয়া থেকে সেনা প্রত্যহারের বিষয়ে শর্ত আরোপ করে বলেন, কুর্দি ওয়াইপিজি গেরিলাদেরকে তুরস্কের পক্ষ থেকে নিরাপত্তার নিশ্চয়তা দিতে হবে। সেসময় তিনি এও বলেছিলেন যে, উত্তর সিরিয়া থেকে মার্কিন সেনারা সরে যাবে তবে কবে পুরো সিরিয়া থেকে সেনা প্রত্যাহার করা হবে তার কোনো সুনির্দিষ্ট সময়সীমা নেই।