গার্মেন্ট শ্রমিকদের ওপর পুলিশি দমনপীড়ন বন্ধের আহ্বান জার্মান রাষ্ট্রদূতের | insaf24.com

গার্মেন্ট শ্রমিকদের ওপর পুলিশি দমনপীড়ন বন্ধের আহ্বান জার্মান রাষ্ট্রদূতের

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


ফাইল ছবি

আন্দোলনরত গার্মেন্ট শ্রমিকদের ওপর পুলিশি দমনপীড়ন বন্ধের আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত জার্মানির রাষ্ট্রদূত পিটার ফারেনহোলজ। শ্রমিকদেরকে ন্যায্য মজুরি দেয়ার জন্য তিনি কারখানা মালিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। এক টুইটে তিনি আজ বৃহস্পতিবার (১০ জানুয়ারি) এসব কথা বলেছেন।

টুইটে তিনি লিখেছেন, আন্দোলনরত গার্মেন্ট শ্রমিকদের ওপর পুলিশের দমনপীড়ন চালানো উচিত নয়। এর জন্য প্রয়োজন সমঝোতা। তা করতে হবে কারখানা মালিকদের। ন্যায্য মজুরি ও নিরাপদ কর্মপরিবেশ দিন। দুর্ঘটনা বা এক্সিডেন্ট বিষয়ক ইন্সুরেন্স প্রতিষ্ঠা করুন। সরকারের আড়ালে থাকবেন না।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের তৈরি পোশাকের দ্বিতীয় সর্ববৃহৎ ক্রেতা দেশ জার্মানি। এক্ষেত্রে প্রথম অবস্থানে আছে যুক্তরাষ্ট্র।


ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্স

ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্সদেশের প্রথম ইসলামী ঘরানার অনলাইন পত্রিকা ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকমের আয়োজনে শুরু হতে যাচ্ছে স্বল্পমেয়াদী সাংবাদিকতা কোর্স।অংশগ্রহণ করতে যোগাযোগ করুন এই নাম্বারে-০১৭১৯৫৬৪৬১৬এছাড়াও সরাসরি আসতে পারেন ইনসাফ কার্যালয়ে।ঠিকানা – ৬০/এ পুরানা পল্টন ঢাকা ১০০০।

Posted by insaf24.com on Monday, October 29, 2018


প্রশংসার পাশাপাশি সরকারের কুকর্ম তুলে ধরব: জিএম কাদের
জানুয়ারি ১০, ২০১৯
ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, বিরোধী দল মানেই ভাঙচুর-অবরোধ-নৈরাজ্য সৃষ্টি করা নয়। রাজনীতিতে কেউ কারো প্রতিপক্ষ বা শত্রু নয়। বিরোধী দল জাতীয় সংসদে জনগণের কল্যাণের পক্ষে কথা বলবে। সরকারের ভালো কাজের প্রশংসার পাশাপাশি আমরা সরকারের দুর্নীতি, কুকর্ম ও দোষত্রুটি তুলে ধরব এবং সমাধান না হলে আমরা বিরোধী দলের ভূমিকায় সোচ্চার হব।

বুধবার (৯ জানুয়ারি) ঢাকার কাকরাইলে জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে জাতীয় যুব সংহতি কর্তৃক আয়োজিত এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, আমরা সত্যিকারের বিরোধী দল হতে চাই। আমরা সরকারের সঙ্গেও থাকি আবার বিরোধী দলেও থাকি মানুষ সেটা পছন্দ করে না। আমরা সত্যিকারের বিরোধী দলের ভূমিকায় থাকব। আমরা বঞ্চিত ও সাধারণ মানুষের পক্ষে কথা বলব। অধিকার আদায়ের জন্য লড়াই করব এবং আমরা অচিরেই জনগণের সমর্থন পাব। বাংলাদেশের উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় বিরোধী দলের সত্যিকার ভূমিকা রাখব। আমরা সাংগঠনিকভাবে শক্তিশালী হব।আমরা উন্নয়ন ও সুশাসনের কথা জাতি ও নতুন প্রজন্মকে জানাব।

জাতীয় যুব সংহতির কেন্দ্রীয় সভাপতি আলমগীর সিকদার লোটনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক ফকরুল আহসান শাহজাদার উপস্থাপনায় এ অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- পার্টির মহাসচিব ও বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ মো. মসিউর রহমান রাঙ্গা এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যাপিকা মাসুদা এম রশিদ চৌ, যুবনেতা আহাদ ইউ চৌধুরী শাহিন, যুবসংহতি উত্তরের সভাপতি মঞ্জুরুল হক, দক্ষিণের সভাপতি মো. দ্বীন ইসলাম শেখ, মো. শফিকুল ইসলাম দুলাল ও আলমগীর কবির।