‘ব্রিটিশদের গোলামরাই আজ ভারত শাসন করছে’

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | ডেস্ক রিপোর্ট


ব্রিটিশদের গোলামরাই আজ ভারত শাসন করছে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতের বিহার রাজ্যের সাবেক উপ-মুখ্যমন্ত্রী ও রাষ্ট্রীয় জনতা দল নেতা তেজস্বী যাদব।

তিনি বলেন, ‘যারা একসময় ব্রিটিশদের দাসত্ব করেছিলেন, তারাই আজ দেশের শাসন ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত রয়েছে।’

তিনি আজ (সোমবার) উত্তর প্রদেশের রাজধানী লক্ষনৌতে সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও সমাজবাদী পার্টির প্রধান অখিলেশ যাদবের সঙ্গে সাক্ষাতের পর এক সংবাদ সম্মেলনে ওই মন্তব্য করেন।

তেজস্বী যাদব বলেন, ‘উত্তর প্রদেশ ও বিহার থেকে বিজেপি নির্মূল হওয়া নিশ্চিত। দেশে অঘোষিত জরুরি অবস্থার পরিবেশ রয়েছে, দেশের যুবকরা কর্মহীন হয়ে আছেন।’

তিনি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে কটাক্ষ করে বলেন, ‘নির্বাচন শেষ হওয়ার পরেই আপনারা সকলেই বুঝতে পারবেন কে কতটা বেইমান ছিলেন এবং আমাদের ‘চৌকিদার’ কীভাবে কত বড় বেইমানি করার কাজ করেছেন। সাধারণ মানুষের পাশপাশি গোটা দেশবাসীর সঙ্গে উনি প্রতারণা করেছেন। মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, আগামীদিনে মানুষ এসব ঘটনার উপযুক্ত জবাব দেবে।’

লালু প্রসাদ যাদবের পুত্র বলেন, ‘উত্তর প্রদেশে ৮০, বিহারে ৪০টি এবং ঝাড়খন্ডে ১৪টি আসন বিজেপি পরাজিত হলে, তারা আপনা থেকেই একশ’রও কম আসনে পৌঁছে যাবে। বিজেপি’র লোকেরা বড় বড় স্বপ্ন দেখানোর কাজ করেছিল, বিহারের নির্বাচনে যে বিশেষ প্যাকেজের কথা বলা হয়েছিল তার কিছুই হয়নি।’

তেজস্বী যাদব সমাজবাদী পার্টি ও বহুজন সমাজ পার্টির জোট প্রসঙ্গে আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, অখিলেশ (সমাজবাদী পার্টির প্রধান) ও মায়াবতী (বহুজন সমাজ পার্টির প্রধান) যে পদক্ষেপ নিয়েছেন তারফলে দেশ নাগপুরের (আরএসএসের সদর দফতর) আইন থেকে রক্ষা পাবে।’

কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সিবিআই, ইডি এখন বিজেপি’র পার্টনারে পরিণত হয়েছে। লালুজি (বিহারের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও তেজস্বী যাদবের বাবা) এজন্যই কারাগারে আছেন।’

উত্তর প্রদেশে সমাজবাদী পার্টি ও বহুজন সমাজ পার্টির জোটে কংগ্রেসকে শামিল না করা প্রসঙ্গে তেজস্বী যাদব বলেন, ‘সকলেরই উদ্দেশ্য বিজেপিকে পরাজিত করা। কিন্তু বিজেপিকে পরাজিত করার জন্য সমাজবাদী পার্টি ও বহুজন সমাজ পার্টির জোটই যথেষ্ট।’

সূত্র : পার্সটুডে


ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্স

ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্সদেশের প্রথম ইসলামী ঘরানার অনলাইন পত্রিকা ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকমের আয়োজনে শুরু হতে যাচ্ছে স্বল্পমেয়াদী সাংবাদিকতা কোর্স।অংশগ্রহণ করতে যোগাযোগ করুন এই নাম্বারে-০১৭১৯৫৬৪৬১৬এছাড়াও সরাসরি আসতে পারেন ইনসাফ কার্যালয়ে।ঠিকানা – ৬০/এ পুরানা পল্টন ঢাকা ১০০০।

Posted by insaf24.com on Monday, October 29, 2018


কাতারকে সহযোগিতা করার প্রতিশ্রুতি দিলেন এরদোগান
জানুয়ারি ১৪, ২০১৯
ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | আরিফ মুসতাহসান


তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, আঙ্কারা কাতারের শক্তিশালী সহযোগী। তিনি কাতারকে প্রতিরক্ষা, বাণিজ্য, পর্যটন ও জ্বালানি সহ বিভিন্ন সেক্টরে সহযোগিতা করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

রবিবার (১৩ জানুয়ারী) তুরস্কের উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ সাকারিয়ায় প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান বিএমসি’র এক বৈঠকে এসব কথা বলেন।

এরদোগান বলেন, আমরা কখনো ভুলে যাই না। ১৫ জুলাইয়ের অভ্যুত্থানের পরে তুর্কি লিরার (তুরস্কের মুদ্রা) যেভাবে দর পতন শুরু হয়েছিল তখন কাতারী ভাইয়ের অবদান এখনো মনে আছে। কাতার-তুরস্ক সম্পর্কে জয়জয়কার চলছে। যেকোনো অনুকূল পরিস্থিতিতে আঙ্কারা- দোহা তাদের বন্ধুত্ব অব্যাহত রেখেছে।

এরদোগান আরো বলেন, তুরস্ক ক্রমাগত প্রতিরক্ষা শিল্প জোরদার করছে। ২০০২ সালে তুরস্কের বিদেশী নির্ভরতা ৮০% ছিলো যা বর্তমানে এসে দাঁড়িয়েছে ৩৫% এ। তবে তুরস্কের সামরিক, অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক ক্ষমতা আরো শক্তিশালী হওয়া উচিত।