এরশাদ ক্ষমতা লোভী হলে সরকারের অংশীদারিত্ব নিতেন : রাঙ্গা

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


জাতীয় পার্টির মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা বলেছেন, এরশাদের কোনো ক্ষমতার লোভ নেই। তিনি ক্ষমতার লোভী হলে ৯৬ সালে বিএনপির দেয়া প্রস্তাব মেনে নিয়ে সরকার গঠন করতে পারতেন। এবারও বিরোধী দলে না গিয়ে সরকারের অংশীদারিত্ব নিতে পারতেন। উনি জাতীয় পার্টিকে সত্যিকারের বিরোধী দল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে চান। যাতে সরকারের জনবিরোধী সকল কর্মকাণ্ডের বিরোধিতা করতে পারেন।

রবিবার (২৭ জানুয়ারী) সন্ধ্যায় শ্যামপুর বালুর মাঠে শ্যামপুর-কদমতলী থানা জাপা আয়োজিত পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের রোগমুক্তি কামনায় দোয়া মাহফিলপূর্বক বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রাঙ্গা বলেন, স্বাধীনতার পর সংবিধান প্রণেতা ড. কামাল হোসেন সংবিধান রচনা করলেও ইসলামকে রাষ্ট্রধর্ম হিসেবে লিপিবদ্ধ করেননি। তখন ভারত ও রাশিয়ার সাথে সামঞ্জস্য রেখে রাষ্ট্রে ধর্মনিরপেক্ষতা রাখা হয়েছিল। এরশাদ রাষ্ট্রক্ষমতায় এসে ৮৫ভাগ মুসলমানের এদেশকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম ঘোষণা করেছেন।

আজ এরশাদের জন্য শুধু আমরা নই, দলমত নির্বিশেষে এবং মসজিদ-মন্দির-গীর্জায় দোয়া হচ্ছে। এরশাদকে সকল ধর্মের মানুষই ভালবাসে। এরশাদ সকল উপসানালয়ের বিদ্যুৎ পানির বিল মওকুফ করেছিলেন। কারণ হিসেবে এরশাদ বলতেন মসজিদ, মন্দির ও গির্জার টাকা দিয়ে রাষ্ট্র চালাবো না। যে মানুষটা ইসলাম ও দ্বীনের পথের জন্য কিছু করার চেষ্টা করেছেন আল্লাহ যেনো তাকে দ্রুত সুস্থ অবস্থায় আমাদের কাছে ফিরিয়ে আনেন সে প্রার্থনা করি।

ঢাকা-৪ আসনের সংসদ সদস্য সৈয়দ আবু হোসেন বাবলার সভাপতিত্বে এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন শ্যামপুর থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন, ৫৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাজী নুর হোসেন, ৪৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নাসির উদ্দিন ভূইয়া, মাইনুদ্দিন চিশতী, ইব্রাহীম খলিল মারুফ, আলমগীর হোসেন মিজানুর রহমান, আজিজ আহমেদ, জাপা নেতা শেখ মাসুক রহমান, সুজদ দে, সারফুদ্দিন আহমেদ শিপু, কাউসার আহমেদ, মাহবুবুর রহমান খসরু প্রমুখ।

ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্স

ইনসাফ সাংবাদিকতা কোর্সদেশের প্রথম ইসলামী ঘরানার অনলাইন পত্রিকা ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকমের আয়োজনে শুরু হতে যাচ্ছে স্বল্পমেয়াদী সাংবাদিকতা কোর্স।অংশগ্রহণ করতে যোগাযোগ করুন এই নাম্বারে-০১৭১৯৫৬৪৬১৬এছাড়াও সরাসরি আসতে পারেন ইনসাফ কার্যালয়ে।ঠিকানা – ৬০/এ পুরানা পল্টন ঢাকা ১০০০।

Posted by insaf24.com on Monday, October 29, 2018


প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণ প্রত্যাখ্যান করেছে ঐক্যফ্রন্ট
জানুয়ারি ২৬, ২০১৯
ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আমন্ত্রণে গণভবনে যাচ্ছে না জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট।

আজ শনিবার সন্ধ্যায় ঐক্যফ্রন্টের শরিক দল গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী সংবাদমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ২ ফেব্রুয়ারি শুভেচ্ছা বিনিময়ের জন্য জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। আজ বিকেলে গণভবন থেকে শুভেচ্ছা বিনিময়ের জন্য চা-চক্রের আমন্ত্রণ পেয়েছি, কিন্তু এতে যাওয়ার সুযোগ নেই।

এটা আপাতত প্রাথমিক প্রতিক্রিয়া বলেও জানান সুব্রত চৌধুরী।

এরআগে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টকে আগামী ২ ফেব্রুয়ারি (শনিবার) গণভবনে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শনিবার (২৬ জানুয়ারি) দাওয়াত কার্ড সম্পর্কে নিশ্চিত করেছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা ও গণফোরাম সেক্রেটারি মোস্তফা মহসীন মন্টু।

গণফোরাম সাধারণ সম্পাদক জানান, আমরা দাওয়াত কার্ড পেয়েছি। কী জন্য দাওয়াত দেওয়া হয়েছে তা জানি না। তবে গণভবন থেকে কোনও ফোন করা হয়নি।