ভারতের আদলে কওমী সনদের স্বীকৃতি দিলে নিতে আপত্তি নেই: মাওলানা মীর ইদরীস

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম |

মাওলানা মীর ইদরীস
(হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় নেতা ও দেশের অন্যতম প্রধান মহিলা কওমি মাদরাসা আল’হুদা’র প্রিন্সিপ্যাল)


%e0%a6%ae%e0%a6%be%e0%a6%93%e0%a6%b2%e0%a6%be%e0%a6%a8%e0%a6%be-%e0%a6%ae%e0%a7%80%e0%a6%b0-%e0%a6%87%e0%a6%a6%e0%a6%b0%e0%a7%80%e0%a6%b8
মাওলানা মীর ইদরীস

কওমী মাদরাসা শিক্ষা ও সনদের স্বীকৃতি প্রসঙ্গ

কওমী মাদরাসা শিক্ষা ও দীক্ষার মূল উদ্দেশ্য ছিল রাসূল সল্লাল্লাহূ আলাইহি ওয়াসাল্লামের পদাংক অনুসরণে আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জন। যুগের চাহিদা ও কওমী শিক্ষার্থীদের কর্মপরিধি প্রসারের লক্ষে কওমী শিক্ষা ও সনদের স্বীকৃতি সময়ের দাবী।

যেমন ভারতে দারূল উলূম দেওবন্দ ও দারূল উলূম নদওয়াতুল উলামাসহ কওমী মাদরাসার সনদ দিয়ে ভারতের যে কোন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিযুদ্ধে অংশগ্রহন করে উচ্চ শিক্ষা লাভের সুযোগ রয়েছে এবং শিক্ষার্থীদের মেধা অনুসারে ওদের কর্মক্ষেত্রেও যথাযথ মূল্যায়ন হয়।

আমাদের দেশ দীর্ঘদিন ধরে কউমী শিক্ষা ও সনদের স্বীকৃতি নিয়ে আন্দোলন সংগ্রাম ও আলোচনা পর্যালোচনা চলছে।

বর্তমা সরকারও নাকি স্বীকৃতি দিতে আগ্রহী। তবে আমার প্রশ্ন; এটা কি ভারতের অনুকরণে কউমী মাদরাসার উদ্দেশ্য ও স্বকীয়তা বজায় রেখে স্বীকৃতি দেওয়া ?

যদি তাই হয় তাহলে এ স্বীকৃতি দেশ, জাতি ও ধর্মীয় ক্ষেত্রে অনেক কল্ল্যাণ বয়ে আনবে। আমিও এ স্বীকৃতিকে সমর্থন করি।

আর যদি এ স্বীকৃতির মুলা ঝুলিয়ে শিক্ষামন্ত্রী জনাব নুরূল ইসলাম নাহিদ সাহেবদের উদ্দেশ্য হয় কাউমী মাদরাসা নিয়ন্ত্রণ বা কওমী শিক্ষাকে ধর্মহীন করা, তাহলে এ ধরনে স্বীকৃতি নেওয়ার চেয়ে না নেওয়াই উত্তম। অতএব আগ্রহী দেরকেই তাদের উদ্দশ্য স্পস্ট করতে হবে।


ফেসবুক থেকে