জুয়া সংক্রান্ত ১৭৬ ওয়েবসাইট বন্ধ করা হয়েছে

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক


অনলাইনে জুয়া খেলার ১৭৬টি ওয়েবসাইট বন্ধ করেছে বাংলাদেশে টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)।

সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে বিটিআরসি রোববার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দেশের সব ইন্টারনেট সরবরাহকারী গেটেওয়ে ও টেলিকম ডিপার্টমেন্টকে জুয়া সংক্রান্ত ওয়েবসাইটগুলো বন্ধের নির্দেশ দেন।

নিরাপদ ইন্টারনেট সুবিধা প্রদানের জন্য এ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে বিটিআরসি কর্তৃপক্ষ। বিটিআরসি আজ বিকেলে এই আদেশ দেওয়ার পর থেকে ১৭৬টি ওয়েবসাইট বন্ধ করা হয়েছে। যা এখন থেকে আর বাংলাদেশে ব্যবহার করা যাবে না।

ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন বাংলাদেশের (আইএসপিএবি) সাধারণ সম্পাদক মো. ইমদাদুল হক বলেন, ‘একে একে সাইটগুলো বন্ধ করা হচ্ছে, সবগুলো সাইট বন্ধ করতে কয়েক ঘণ্টা সময় লেগে যেতে পারে।’

বিটিআরসির একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এ বিষয়ে বলেন, ‘তারা আগে থেকেই সাইটগুলো বন্ধ করার ব্যাপারে বিভিন্ন জায়গা থেকে অভিযোগ পেয়েছেন।’

এর আগে ইন্টারনেট নিরাপত্তা ও টু-জি লেভেল প্রগ্রামের আওয়াত ১৫২৩টি ওয়েবসাইট বন্ধ করেছে সরকার।


সিলেটে ‘আল্লামা হোসাইন আহমেদ মাদানী চত্বর’ উদ্বোধন
ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৯
ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


উপমহাদেশের প্রখ্যাত আলেমে দ্বীন, বৃটিশ বিরোধী আন্দোলনের অন্যতম সিপাহসালার, হযরত মাওলানা সৈয়দ হুসাইন আহমদ মাদানীর (রহ.)
স্মরণে সিলেট নগরীর নয়াসড়ক চত্বরের নতুন নামকরণ করা হয়েছে ‘মাদানী চত্বর’।

রোববার (১৭ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ও মাওলানা সৈয়দ হুসাইন আহমদ মাদানীর (রহ.) পুত্র মাওলানা সৈয়দ আসজাদ মাদানী (রহ.) এ চত্বরের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন।

এর আগে নয়াসড়ক জামে মসজিদে মাগরিবের নামাজ আদায় শেষে আগত মুসল্লিদের উদ্দেশ্যে বয়ান পেশ করেন তিনি।

এরপর দেশবাসী ও মুসলিম উম্মাহর কল্যাণ কামনা করে মোনাজাত করা হয়।

এদিকে চত্বরের উদ্বোধন শেষে সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, সিলেটের ইসলামী মূল্যবোধ বিকাশের ইতিহাসে উপমহাদেশের প্রখ্যাত আলেমে দ্বীন মাওলানা হুসাইন আহমদ মাদানীর নাম এখনো ঘরে ঘরে। উপমহাদেশের এই ধর্মীয় ব্যক্তিত্বের সাথে নয়াসড়ক জামে মসজিদের অনেকদিনের স্মৃতি বিজড়িত।

তিনি জানান, ১৯২২ সাল থেকে হুসাইন আহমদ মাদানী সিলেটের সঙ্গে সম্পর্কিত হন। প্রথম দিকে একটানা তিন বছর অবস্থান করেন। পরে ১৯৪৭ পূর্ববর্তী সময়ে প্রতিবছর রমজান মাসে সিলেট আসতেন। তাঁর কেন্দ্র ছিল ঐতিহাসিক নয়াসড়ক জামে মসজিদ। আজও এই প্রখ্যাত আলেমের স্মৃতি সিলেট নগরীতে সজীব রয়েছে। আমরা সকলের পবিত্র আবেগের প্রতি সম্মান পোষণ করি। তাই তাঁর স্মৃতি সংরক্ষণের জন্যই নয়াসড়ক পয়েন্টকে ‘মাদানী চত্বর’ নামে নামকরণ করা হয়েছে।