খ্রিষ্টান সন্ত্রাসীর হামলার ঘটনায় মুসলমানদেরকেই দায়ী করলেন অস্ট্রেলীয় সিনেটর!

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | আন্তর্জাতিক ডেস্ক



নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় মুসলিম সম্প্রদায়কেই দায়ী করে অস্ট্রেলীয় সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিং বলেছেন, “আজ হয়তো তারা হামলার শিকার, কিন্তু তারা সাধারণত অপরাধী”

বিশ্বজুড়ে নিন্দা ও শোক প্রকাশ চলছে তখন তাঁর এই মন্তব্য নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

ব্রিটিস গণমাধ্যম ‘দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট’ তাদের প্রতিবেদনে উল্লেখ করে, কুইন্সল্যান্ডের সিনেটর ফ্রেজার অ্যানিং এক বিবৃতিতে দাবি করেন, “অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডে ক্রমবর্ধমান মুসলিম উপস্থিতির ফলে আমাদের কমিউনিটিতে ভীতি বৃদ্ধি পাওয়াই এর মাধ্যমে উন্মোচিত হয়।”

বিবৃতিতে ফ্রেজার বলেন, “বরাবরের মতোই বামপন্থী রাজনীতিক ও গণমাধ্যম এই গুলির ঘটনার পেছনে অস্ত্র আইন অথবা জাতীয়তাবাদী আদর্শধারীদের দোষারোপ করবে কিন্তু এগুলো আসলে সস্তা আবোল-তাবোল কথা।”

তিনি বলেন, “নিউজিল্যান্ডের রাস্তায় আজকের এই রক্তপাতের পেছনে প্রকৃতপক্ষে দায়ী হচ্ছে অভিবাসন পদ্ধতি যা মুসলিম চরমপন্থীদের নিউজিল্যান্ডে অভিবাসনের সুযোগ দিচ্ছে।”

উল্লেখ্য, ফ্রেজার অ্যানিং অস্ট্রেলিয়ার ফেডারেল নির্বাচনে মাত্র ১৯ ভোট পেয়েছিলেন। আরেক প্রতিদ্বন্দ্বী ম্যালকম রবার্টস তথ্য গোপনের অভিযোগে বাদ পড়ায় ফ্রেজার সিনেটর হিসেবে নির্বাচিত হন।

এদিকে সিনেটর ফ্রেজারের এই মন্তব্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক সমালোচনা চলছে।

ডেভিড জিলেট নামে এক ফেসবুক ব্যবহারকারী পোস্টে লিখেছেন, “মূর্খ ফ্রেজার অ্যানিং দেখালো সে কতবড় বর্ণবাদী ধর্মান্ধ।”

মানসৌরি যাকারিয়া নামে একজন মন্তব্য করেছেন, “আপনাদের সমস্যা কী? আপনাদের নিজেদের উন্মাদকে দায়ী করুন তার অপরাধের জন্য। আপনার দেশের দায় স্বীকার করুন এবং দেশকে বাঁচানোর জন্য পদক্ষেপ নিন। যদি তা না পারেন, অন্তত মুখ বন্ধ রাখুন।”