আগামীকাল হাটহাজারী মাদ্রাসার বার্ষিক মাহফিল

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম |

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার অন্যতম বৃহৎ ইসলামী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দারুল উলূম মুঈনুল ইসলাম হাটহাজারী মাদ্রাসার বার্ষিক মাহফিল ও দস্তারবন্দী সম্মেলন আগামী কাল (২৭ জানুয়ারী) শুক্রবার মাদ্রাসা চত্বরে অনুষ্ঠিত হবে।

দেশের প্রাচীন ঐতিহ্যবাহী বেসরকারী ধর্মীয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে ইসলাম ও মুসলিম স্বার্থসংশ্লিষ্ট জাতীয় ও আন্তর্জাতিক প্রেক্ষাপটসহ ইসলামের সার্বিক বিষয়ে দিক-নির্দেশনা প্রদান করে প্রখ্যাত ইসলামী চিন্তাবিদ ও শীর্ষস্থানীয় উলামা মাশায়েখগণ কুরআন-হাদীস ভিত্তিক বক্তব্য রাখবেন। মাহফিলে দেশ ও জাতির উদ্দেশ্যে বিশেষ হিদায়াতী বক্তব্য ও আখেরী মুনাজাত পরিচালনা করবেন দারুল উলূম হাটহাজারী মাদ্রাসার মহাপরিচালক, হেফাজতে ইসলামের আমীর দেশের শীর্ষ আলেম পীরে কামেল আল্লামা শাহ আহমদ শফী। মাহফিল শেষে একই দিন বাদ ইশা দস্তারবন্দী সম্মেলন বা বিশেষ সমাবর্তনে গত বছরের দাওরায়ে হাদীস (টাইটেল) উত্তীর্ণ প্রায় আড়াই হাজার তরুণ আলেমকে বিশেষ সম্মানসূচক পাগড়ি প্রদান করা হবে।

সম্মেলনে অংশগ্রহণের জন্য এর মধ্যেই দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে হাজার হাজার উলামা-মাশায়েখ ও মুসল্লী উপস্থিত হয়ে মাদ্রাসার বিভিন্ন হল রুম, ছাত্রবাস, মসজিদ ও স্থানীয় আবাসিক হোটেলে অবস্থান করছেন।

সম্মেলনের আগের দিন বিশাল মাঠ জুড়ে সামিয়ানা স্থাপন, স্টেজ নির্মাণ ও মুসল্লীদের বসার ব্যবস্থাসহ সার্বিক প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। শুক্রবার মাহফিলের নির্ধারিত দিন হলেও আগের দিন (আজ) বৃহস্পতিবার বাদ যোহর থেকেই বয়ান শুরু হয়েছে। বাদ যোহর থেকে আছর পর্যন্ত জামিয়ার উস্তাদ মাওলানা আনওয়ার শাহ আজহারী এর পরিচালনায় আরবী সাহিত্য বিভাগের ছাত্ররা আরবীতে বিষয়ভিত্তিক বক্তব্য রাখেন। বর্তমানে পুরো ক্যাম্পাস জুড়েই উৎসবমুখর অবস্থা বিরাজ করছে। ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের দাওরায়ে হাদীস (টাইটেল) উত্তীর্ণ প্রায় আড়াই হাজার সাবেক ছাত্র বর্তমানে মাদ্রাসা ক্যাম্পাসে অবস্থান করে নির্ধারিত টোকেন সংগ্রহ ও অন্যান্য আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্নে ব্যস্ত রয়েছেন।

এ উপলক্ষে হাটহাজারী মাদ্রাসার মহাপরিচালক ও হেফাজত আমীর শায়খুল ইসলাম আল্লামা শাহ্ আহ্মদ শফী এক বিবৃতিতে দেশের সর্বস্তরের মুসলিম জনসাধারণের প্রতি বার্ষিক মাহফিল ও দস্তারবন্দী সম্মেলনে শরীক হয়ে বর্তমানে মুসলিম জাতির বিভিন্ন সংকট ও দুর্দশা লাঘবে শীর্ষস্থানীয় উলামা-মাশায়েখ প্রদত্ত দিক-নির্দেশনা লাভ এবং দারুল উলূম মুঈনুল ইসলাম হাটহাজারী মাদ্রাসার বহুমুখী ধর্মীয় শিক্ষা ও প্রচার কার্যক্রম পরিদর্শন করার আহ্বান জানান। সম্মেলনের সার্বিক কামিয়াবী ও সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার জন্যও তিনি সকলের সহযোগিতা ও দোয়া চেয়েছেন।