শৈলকুপায় মস্তকবিহীন লাশ: পুলিশ বলছে নারী ঘটিত কারণে হত্যা !

ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার রামচন্দ্রপুর গ্রামের ধান ক্ষেত থেকে উদ্ধার হওয়া মস্তক বিহীন লাশের পরিচয় মিলেছে। লাশটি জেলার হরিণাকুন্ডু উপজেলার হিঙ্গেরপাড়া গ্রামের যুবক জামাল হোসেন ওরফে ইছানুর (২৯) বলে পুলিশ নিশ্চিত হয়েছে। নিহত ইছা একই গ্রামের আইয়ূব আলীর ছেলে। নারী ঘটিত কারণে জামাল হোসেন ইছাকে হত্যা করা হতে পারে বলে পুলিশ সন্দেহ করছে।

ইছার মামাতো ভাই পুর্ববাংলা কমিউনিষ্ট পার্টির আঞ্চলিক নেতা টিপু ও তার চাচা তৈয়ব আলীকেও দুর্বৃত্তরা খুন করেছিল। গ্রামবাসির ভাষ্যমতে জামাল হোসেন ইছা ইটভাটায় কাজ করতো। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় সন্ত্রাসী ও নারী ঘটিত অপরাধ করার অভযোগ ছিল।

দুই বছর আগে একই গ্রামের রাশিদুল ইসলামের স্ত্রীকে ভাগিয়ে নিয়ে বিয়ে করে ইছা। সেই স্ত্রী কুষ্টিয়ার বিত্তিপাড়া থাকে। সেখানে যাওয়ার সময় সুযোগ বুঝে দুর্বৃত্তরা ইছাকে হত্যা করতে পারে বলে তার পরিবার দাবী করছে।

এ বিষয়ে হরিণাকুন্ডু থানার ওসি মাহতাব উদ্দীন জানান, শৈলকুপার রামচন্দ্রপুর গ্রামের ধান ক্ষেত থেকে উদ্ধার হওয়া মস্তক বিহীন লাশটি হরিণাকুন্ডু উপজেলার হিঙ্গেরপাড়া গ্রামের যুবক জামাল হোসেন ইছার বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। হত্যার কারণ নারী ঘটিত বলে প্রাতমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

তিনি জানান, বিষয়টি শৈলকুপা থানা তদন্ত করছে। উল্লেখ্য, গত শুক্রবার সকাল ১০ টার দিকে কৃষকরা মাঠে কাজ করতে গিয়ে গলাকাটা লাশটি দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়। শৈলকুপার রামচন্দ্রপুর পুলিশ ক্যাম্পের টু-আইসি শিবু হালদার ফোর্স নিয়ে লাশটি উদ্ধার করে।