আইন করে মসজিদের ইমামদের কন্ঠরোধ রোধ করা যাবে না : মাওলানা জালালুদ্দীন আহমদ

সুপ্রিম কোর্টের সামনে থেকে গ্রীক দেবীর মূর্তি অপসার ও সন্ত্রাসবাদ নির্মূলের দাবীতে আগামী ১৫ এপ্রিল গুলিস্তানস্থ কাজী বশির মিলনায়তনে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের জাতীয় সমাবেশকে সফল করার লক্ষে নরসিংদী জেলা শাখার উদ্যোগে জেলা সভাপতি ও সিনিয়র নায়েবে আমীর মাওলানা ইসমাঈল নূরপুরীর সভাপতিত্বে এক বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের যুগ্ম-মহাসচিব মাওলানা জালালুদ্দীন আহমদ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, সুপ্রিমকোর্ট এদেশের মানুষের আস্থা ও বিশ্বাসের যথাযথ মূল্যায়ন করবে এটাই জাতির প্রত্যাশা অথচ সেখানে গ্রীক দেবীর মূর্তিকে ন্যায় বিচারের প্রতীক হিসেব স্থাপন করে এদেশের নব্বই ভাগ মানুষের সাথে সাংঘর্ষিক অবস্থার সৃষ্টি করেছে যা কখনও কাম্য নয়। অতিসত্তর এ মূর্তিকে অপসারণ করার জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবী জানান।

তিনি তার বক্তব্যে আরও বলেন, দেশ ও জাতির ক্রান্তি লগ্নে এদেশের ইমাম সমাজের ভূমিকাই শ্রেয় তাদের বয়ানের মধ্য দিয়ে মানুষ ঈমান, ইসলাম ও আমলের প্রতি আকৃষ্ট হয়ে অন্যায় ও অসত্য কাজ থেকে বিরত থাকে। অথচ আদালতের মাধ্যমে তাদের কন্ঠকে রোধ করে দেশে অশান্তি ও বিশৃ্খংলা সৃষ্টির পায়তারা চলছে। যা কখনো মেনে নেয়া যায় না।

তিনি আগামী ১৫ এপ্রিলের জাতীয় সমাবেশকে সফল করার জন্য দেশবাসীর প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান।

সভাপতির বক্তব্যে মাওলানা ইসমাঈল নূরপুরী বলেন, একশ্রেণীর মানুষ এদেশের যুব সমাজকে ইসলামের নামে ভুল বুঝিয়ে জঙ্গিবাদের কাজে জড়াচ্ছে। অথচ এজাতীয় কাজ ইসলামে কখনোই সাপোর্ট করে না। তিনি ইসলামের নামে এজাতীয় কর্মকাণ্ড থেকে বিরত থাকার জন্য যুব সমাজের প্রতি আহ্বান জানান এবং দেশ ও জাতির কল্যাণ কামনায় দোআ করেন।

এতে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, জেলা সহ-সভাপতি মাওলানা আব্দুন নূর, মাওলানা সুলতান উদ্দীন নূরী, মাওলানা তাজুল ইসলাম, সেক্রেটারী মুফতী ইলিয়াছ শেরপুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা অলি উল্লাহ, মাওলানা আব্দুর রাজ্জাক, মাওলানা ইব্রাহীম প্রমূখ।