কথিত ‘মঙ্গল শোভাযাত্রা’ পালনের সার্কুলার বাতিল চেয়ে আইনি নোটিশ

আসছে বৈশাখে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মঙ্গল শোভাযাত্রা আয়োজনের বাধ্যবাধকতা রেখে জারি করা সার্কুলার বাতিল চেয়ে আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে। শিক্ষা ও সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সচিব এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা (মাউশি) অধিদফতরের মহাপরিচালক বরাবর পাঠানো হয়েছে এই নোটিশ।

আরিফুর রহমান নামে এক ব্যক্তির পক্ষে তার আইনজীবী মোহাম্মদ আহসান রেজিস্ট্রি ডাকযোগে এই নোটিশ পাঠিয়েছেন।

নোটিশে মঙ্গল শোভাযাত্রাকে হিন্দু সংস্কৃতির অংশ হিসেবে উল্লেখ করা হয়। এতে বলা হয়, হিন্দুরা যুদ্ধের দেবতা হিসেবে মঙ্গল পূজা করে; পূজায় ব্যবহৃত প্রদীপকে মঙ্গল প্রদীপ, হিন্দুদের বিবাহের প্রথম উৎসবকে বলা হয় মঙ্গলাচারণ। তাই পহেলা বৈশাখে বাড়তি গুরুত্ব দিয়ে মঙ্গল শোভাযাত্রা পালনকে সংবিধানের ৪১ (২) অনুচ্ছেদের পরিপন্থী অভিহিত করে এ সংক্রান্ত সার্কুলারটি বাতিল চাওয়া হয় আইনি নোটিশে।
সংবিধানের ওই অনুচ্ছেদে ‘কোনও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যোগদানকারী কোনও ব্যক্তির নিজস্ব ধর্ম-সংক্রান্ত না হলে তাকে কোনও ধর্মীয় শিক্ষাগ্রহণ কিংবা কোনও ধর্মীয় অনুষ্ঠান বা উপাসনায় অংশ নিতে বা যোগদান করতে হবে না’ বলে উল্লেখ করা হয়েছে।