বন্ধু নেতানিয়াহুর পর এবার আরেক বন্ধু সুচির সাথে দেখা করতে যাচ্ছেন মোদী

সত্রাসী রাষ্ট্র হিসেবে পরিচিত ইহুদিবাদি ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুকে বন্ধু মনে করেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আর তাই তো মাত্র কয়দিন আগে ছুটে গিয়েছিলেন ইসরাইলে বন্ধুর সাথে দেখা করতে। দুই বন্ধুর সাক্ষাৎ বেশ আলোচিত সমালোচিত হয়েছিল বিশ্বব্যাপী।

এবার আরেক বন্ধু মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট অং সান সু চি’র সাথে দেখা করতে যাচ্ছেন মোদী।

মিয়ানমারকে ভারতের বন্ধু রাষ্ট্র বলে দাবি করে থাকেন মোদি।

মঙ্গলবার থেকে শুরু হচ্ছে মোদির দুই দিনের এ সফর। সফরকালে মোদি মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট অং সান সু চির সঙ্গে বৈঠক করবেন।

মিয়ানমারের ভারতীয় কমিউনিটিকে পাঠানো এক ই-মেইল বার্তায় মোদি লিখেছেন, আনন্দ ও উদ্যমের সঙ্গে তার মিয়ানমার সফর শুরু হতে যাচ্ছে। গুরুত্বপূর্ণ প্রতিবেশী ও ভারতের অন্যতম কাছের বন্ধু দেশ মিয়ানমারে এটিই তার প্রথম দ্বি-পাক্ষিক সফর। বার্মিজ ভারতীয়রা গত এক দশকে দুই দেশকে অনেক কাছাকাছি নিয়ে এসেছে।

মিয়ানমারে সেনাবাহিনী ও বৌদ্ধ সন্ত্রাসীদের হাতে গণহারে হত্যার শিকার হচ্ছে নিরীহ রোহিঙ্গা মুসলিমরা। এমন অবস্থায় বিশ্বব্যাপী ক্ষোভ আর নিন্দার ঝড় উঠেছে মিয়ানয়ারের বিরুদ্ধে। বিশেষ করে মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট ও কথিত শান্তিতে নোবেল বিজয়ী অং সান সু চি’র প্রতি শুধু ঘৃণা জানাচ্ছে সকল ধর্ম বর্ণের মানুষ।