চলে গেলেন ঢাকার শেষ সরদার | insaf24.com

চলে গেলেন ঢাকার শেষ সরদার

2016-04-29_121742অতীতে ঢাকার বাইশ পঞ্চায়েত সরদাররাই সমাজব্যবস্থা পরিচালনা করতেন। যাঁরা সরদার নির্বাচিত হতেন তাঁদের পাগড়ি পরিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে বরণ করা হতো। তেমনি একজন সরদার ছিলেন মগবাজারের আক্তার সরদার। তাঁকে বলা হতো ঢাকার জীবিত শেষ সরদার। গত ২৬ এপ্রিল দুপুর সাড়ে ১২টায় তিনি মারা যান। আজ তাঁর কুলখানি। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮৫ বছর। তাঁর মৃত্যুর মধ্য দিয়ে ঢাকার জীবন্ত সরদারদের শেষ সূর্য অস্তমিত হলো।

তাঁর আরেকটি পরিচয় ছিল, তিনি ছিলেন মগবাজারের আদি মগ সম্প্রদায়ের বংশধর। দ্বিতীয় ইসলাম খাঁ (১৬৩৫-৩৯ খ্রিস্টাব্দ) যখন ঢাকার সুবেদার তখন চট্টগ্রামে নিযুক্ত মগ রাজার গভর্নর ও রাজার ভ্রাতুষ্পুত্র মুকুট রায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে পরিবার-পরিজনসহ ঢাকায় এসে আশ্রয় নেন। এ আশ্রয়প্রাপ্ত মগ রাজার বংশধরদের সুবেদারের নির্দেশে ঢাকা শহরের উত্তরাঞ্চলের গহিন জঙ্গলে বসবাসের অনুমতি দেওয়া হয়। তাদের আশ্রয়ের এলাকাটিই পরবর্তীকালে মগবাজার নামে নামকরণ হয়েছিল। তাঁরা যে বাড়িতে বাস করছেন সে বাড়ি ‘মগবাজার সরদার বাড়ি’ নামে খ্যাত। ওসমান গনি সরদার নবাব সলিমুল্লাহর কাছ থেকে পাগড়ি পরে সরদারি দায়িত্ব গ্রহণ করেছিলেন। পরবর্তী সময়ে তাঁর দুই ছেলে আক্তার সরদার ও শাহাবুদ্দিন সরদার একই দায়িত্ব পালন করেন।