মায়ানমার সেনাবাহিনীর দাবি রোহিঙ্গাদের হত্যা-ধর্ষণ করা হয়নি

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম |

মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর পৃষ্ঠপোষকতা রোহিঙ্গা মুসলমানদের ঘরবাড়িতে আগুন দেয় উগ্র বৌদ্ধরা

মায়ানমারের আরাকান রাজ্যে রোহিঙ্গাদের জাতিগত ভাবে নিধনযজ্ঞ চালাচ্ছে সেদেশের সেনাবাহিনি। সেনাদের গণহত্যা, ধর্ষণ ও নির্যাতনের মুখে পালিয়ে বেড়াচ্ছে লাখ লাখ রোহিঙ্গা মুসলিম। তবে এসব অভিযোগ ভিত্তিহীন দাবি করেছে মায়ানমারের সেনাবাহিনী। তাদের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের কোনোটিতেই সেনাবাহিনী জড়িত নয় বলে পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছে।

রোহিঙ্গা নির্যাতন ও সহিংসতার বিষয়ে একটি তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। সেখানে এই সহিংসতার কোনোরকম দায় নিজেদের ঘাড়ে নেয়নি সেনারা। প্রতিবেদনে কোনো রোহিঙ্গাকে হত্যা, বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়া, নারীদের ধর্ষণ বা লুটপাটের বিষয়টি পুরোপুরি অস্বীকার করা হয়েছে।

রোহিঙ্গা নির্যাতন ও সহিংসতার বিষয়ে একটি তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে দেশটির সেনাবাহিনী। সেখানে এই সহিংসতার কোনোরকম দায় নিজেদের ঘাড়ে নেয়নি সেনারা। প্রতিবেদনে কোনো রোহিঙ্গাকে হত্যা, বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়া, নারীদের ধর্ষণ বা লুটপাটের বিষয়টি পুরোপুরি অস্বীকার করা হয়েছে।