আজ পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ, দৃশ্যমান হবে বাংলাদেশে

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক


আজ পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ। একই সঙ্গে (মাসের দ্বিতীয়) পূর্ণিমা ও পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ একটি বিরল ঘটনা। মহাকাশ গবেষকরা এর নাম দিয়েছেন ‘সুপার ব্লাড ব্লু মুন এক্লিপস’। শেষবার এমনটা ঘটেছিল ১৮৬৬ সালে।

১৫২ বছর পর বুধবার (৩১ জানুয়ারি) আবারও এরকম একটি ঐতিহাসিক ঘটনার সাক্ষী হতে চলেছে বিশ্ববাসী। মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা জানিয়েছে, প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল, মধ্য ও পূর্ব এশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, নিউজিল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া থেকে এ চন্দ্রগ্রহণ স্পষ্টভাবে দেখা যাবে। তাছাড়া পশ্চিম যুক্তরাষ্ট্র, আলাস্কা, ব্রিটিশ কলাম্বিয়ায়ও তা দেখা যাবে। এছাড়া পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ দৃশ্যমান হবে বাংলাদেশও।

যেসব অঞ্চলে দৃশ্যমান হবে চন্দ্রগ্রহণ

একসঙ্গে পূর্ণিমা ও পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ হওয়ায় চাঁদ রক্তিম রং ধারণ করবে। চন্দ্রগ্রহণের সময় পৃথিবীর ছায়া চাঁদের উপর পড়ে। ফলে ওই সময় চাঁদে লাল বা কমলা রঙের আভা দেখা যায়। চন্দ্রগ্রহণ শেষ হওয়ার পর ছায়ার আড়াল থেকে বের হওয়া চাঁদের উজ্জ্বলতা থাকবে খুব বেশি। এসময় চাঁদকে স্বাভাবিকের তুলনায় ১৪ শতাংশ বেশি উজ্জ্বল দেখাবে। যাকে মহাকাশ গবেষকরা নাম দিয়েছেন ‘সুপার মুন’।

বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৫টা ৩৭ মিনিটে চাঁদ দিগন্তের উপরে উঠবে। সন্ধ্যা ৫টা ৪৮ মিনিটে আংশিক গ্রহণ শুরু হবে। সন্ধ্যা ৬টা ৫১ মিনিটে পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণ শুরু হবে। পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণের মধ্যবর্তী অংশ ৭টা ২৯ মিনিটে সংঘটিত হবে। পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণ ১ ঘণ্টা ১৬ মিনিট স্থায়ী হবে। রাত ১০টা ৮ মিনিটে চন্দ্রগ্রহণের উপচ্ছায়া পর্যায় শেষ হবে।