চাঁদা না পেয়ে চা বিক্রেতাকে পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার দায়ে চার পুলিশ সদস্যকে প্রত্যাহার

2016_02_04_13_52_18_h31JDOvmhnnB7BFTWWyPcLs1UjAk5a_originalচাঁদা না পেয়ে চা বিক্রেতাকে পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার দায়ে শাহ আলী থানার চার পুলিশ সদস্যকে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

পুলিশের মিরপুর বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার জসিম উদ্দীন মোল্লা জানান, চারজনের মধ্যে দুইজন এসআই, একজন এএসআই ও একজন কনস্টেবল। তবে তাৎক্ষণিকভাবে তাদের নাম জানা যায়নি।

দগ্ধ চা বিক্রেতা বাবুল মাতুব্বর বৃহস্পতিবার দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। আগুনে তার শরীরে ৯০ ভাগ পুড়ে গিয়েছিল।

বাবুলের পরিবারের অভিযোগ, বুধবার রাত ৯টায় মিরপুর ১ নম্বর গুদারাঘাটে চাঁদা না পেয়ে পুলিশ চা বিক্রেতা বাবুল মাতব্বরের কেরোসিনের চুলায় বাড়ি মারে। এতে কেরোসিন ছিটকে বাবুলের গায়ে লাগে এবং আগুন ধরে যায়।

তারা বলছেন, চাঁদা না দেওয়ায় পুলিশ বাবুলের ওপর চড়াও হয়েছিল।