হোমায়রা রিমান্ডে, নিনাকে বহিষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যালয়

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


উগ্রবাদে জড়িত থাকার অভিযোগে হোমায়রা ওরফে নাবিলা নামের এক নারীকে গ্রেফতারের পর রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট।

বৃহস্পতিবার তাকে আদালতের মাধ্যমে দুই দিনের রিমান্ডে নেয়া হয়েছে।

তাঁর বিরুদ্ধে জাতীয় শোক দিবস ১৫ আগস্টে সন্ত্রাসী হামলার পরিকল্পনায় জড়িত থাকার অভিযোগ আনা হয়েছে।

হোমায়রাকে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে রাজধানীর গুলশান থেকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইমের উপকমিশনার মোহাম্মদ মহিবুল ইসলাম খান বলেন, “হোমায়রা ওরফে নাবিলা নব্য জেএমবির নারী শাখা ‘ব্যাট উইমেন’-এর প্রধান ছিলেন। ধর্নাঢ্য ব্যক্তির সন্তান হোমায়রা নিয়মিত উগ্রবাদীদের অর্থায়ন করতেন।”

এরআগে গত নভেম্বরে গ্রেফতার হয় হোমায়রার স্বামী করিম ইন্টারন্যাশনাল নামে একটি প্রকাশনা সংস্থার কর্ণধার তানভীর ইয়াসিন করিমকে।

হোমায়রা ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেন। পরে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় ও মালয়েশিয়ায় পড়ালেখা করেছেন।

এদিকে, গুলশান হামলার অন্যতম হোতা তামিম গ্রুপের সঙ্গে সম্পৃক্ততা থাকার অভিযোগে রংপুরের বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের আফরোজ ওরফে নিনা (২৪) নামের এক ছাত্রীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।

তাঁকে বুধবার রাতে লালমনিরহাটের হাতীবান্ধার ধূবনী গ্রাম থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

নীনাকে রংপুরের বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়কে (বেরোবি) বহিষ্কার করেছে কর্তৃপক্ষ। শুক্রবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. নাজমুল আহসান কলিমুল্লাহর এক নির্বাহী আদেশে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।