নোয়াখালীর হাতিয়ায় জাগলার চরে অস্ত্রসহ ৩ জলদস্যু আটক

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | মো: আবদুল মন্নান, হাতিয়া প্রতিনিধি


নোয়াখালীর হাতিয়ায় এক সোর্সকে তুলে নিয়ে হত্যার পর জলদস্যু আস্তানায় অভিযান চালিয়ে তিনজনকে আটক করেছে কোস্টগার্ড।
সোমবার ভোরে জাগলার চরে জলদস্যু বাহিনী প্রধান আলাউদ্দিনের আস্তানায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয় বলে কোস্টগার্ডের হাতিয়া স্টেশন কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার হামিদুল ইসলাম জানান।

আটকরা হলেন জামাল (৩৭), ইউসুফ (২৬) ও আহসান উল্লাহ (২৫)। এরা তিনজনই আলাউদ্দিনের সহযোগী বলে জানিয়েছে কোস্টগার্ড। এ সময় তাদের কাছ থেকে দুটি রাইফেল, ছয়টি কার্তুজ, একটি রাম দা, দুটি ছোট দা, দুটি ছুরি ও চারটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়েছে। কোস্টগার্ড কর্মকর্তা হামিদুল বলেন, রোববার সন্ধ্যায় দস্যুরা নদীতে জেলেদের কয়েকটি নৌকা লুট করে। খবর পেয়ে সোমবার ভোরে জাগলার চরে আলাউদ্দিন বাহিনীর আস্তানায় অভিযান চালায় কোস্টগার্ড। “অভিযান টের পেয়ে আলাউদ্দিন পালিয়ে যেতে সক্ষম হলেও তার তিন সহযোগী ধরা পড়ে।”

তিনি বলেন, এছাড়া আলাউদ্দিন বাহিনীর সদস্যরা গত বুধবার মেঘনা নদী থেকে আরিফ, দিদার ও ফয়সাল নামে তিনজনকে তাদের আস্তানায় তুলে নিয়ে যায়। “এরপর শুক্রবার সকালে নলচিরা ইউনিয়নের তুফানিয়া গ্রামে মেঘনা নদীর তীর থেকে আরিফের মস্তকবিহীন মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। বাকি দুইজনের এখনও সন্ধান মেলেনি।”
আরিফ এলাকায় কোস্টগার্ডের সোর্স হিসেবে পরিচিত ছিল বলে জানান কোস্টগার্ডের এ কর্মকর্তা।