সতীর্থদের ইফতার করাতে খেলার মাঝেই গোলরক্ষকের ইনজুরির ভান

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | স্পোর্টস ডেস্ক


আর মাত্র কয়েকদিন পরই শুরু হচ্ছে ফুটবল বিশ্বকাপ। বিশ্বকাপের প্রস্তুতিতে ব্যস্ত রাশিয়ার টিকিট পাওয়া ৩২ দল। এদের মধ্যে আছে তিউনিসিয়াও।

গত সপ্তাহে পর্তুগাল ও তিউনিসিয়ার ম্যাচের দৃশ্য। মাঠে খেলা চলছে। হঠাৎ তিউনিসিয়ার গোলরক্ষক মৌজ হাসান মাটিতে লুটিয়ে পড়লেন। কিছুক্ষণ খেলা বন্ধ। এই সুযোগে দলের অন্য খেলোয়াড়েরা নিজেদের ডাগআউটের সামনে সাইড লাইনে গিয়ে খেজুর ও পানি পান করলেন। থাকার সুযোগে সতীর্থরা সাইড লাইনে গিয়ে খেজুর খেয়ে ও পানি পান করে ইফতারটা সেরে নিলেন। হাসানও কিছু খেলেন।

বিষয়টি স্বাভাবিক মনে হলেও আসল ঘটনাটা জানলে একটু ভ্রু কুঁচকাতেই হবে। কারণ, ইনজুরিতে পড়ে নয়, ইফতার করার জন্য তিউনিসিয়ার গোলরক্ষক মৌজ হাসান অমন ইনজুরির অভিনয় করেছিলেন। যে সুযোগে সতীর্থদের সঙ্গে ইফতারি করে নিয়েছেন তিনিও।

গোলরক্ষক মৌজ হাসান অমন

এমন দৃশ্য পর পর দুটি প্রস্তুতি ম্যাচে দেখা গেছে। পর্তুগাল ও তুরস্কের বিপক্ষে একই কাজ করেছেন মৌজা হাসান। গত শনিবার তুরস্কের বিপক্ষে দ্বিতীয়ার্ধে গোলবারের সামনে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি। সপ্তাহ খানেক আগে পর্তুগালের বিপক্ষেও করেছিলেন এমনটা।

রোজা রেখে খেলতে নামলেও পর্তুগাল ও তুরস্কের বিপক্ষে দুটি ম্যাচেই ড্র করেছে তিউনিসিয়া।

মুসলিম প্রধান দেশটির ফুটবলারদের অনেকেই রমজানের রোজা রেখে খেলতে নামছেন প্রস্তুতি ম্যাচে। অনেক সময় খেলার মাঝখানেই হয়ে যাচ্ছে ইফতারের সময়। আফ্রিকা অঞ্চলের দেশ তিউনিসিয়ার জনগণের প্রায় ৯৮ শতাংশই মুসলিম। রমজান মাসে খেলা চললেও রোজা রাখা থেকে বিরত থাকেননি দেশটির ফুটবলাররা।