নেত্রকোনার মোহনগঞ্জে নির্মানাধীন ব্রীজের পিলার ভেঙ্গে নিহত ২

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | সোহেল আহম্মেদ


নেত্রকোনার মোহনগঞ্জে ধলাই নদীর উপর এলজিইডির বাস্তবায়নে নির্মানাধীন পাইকুরা ও জৈনপুর গ্রামের সংযোগ ব্রীজের পাইলিং পিলার ভেঙ্গে ৭ বছরের এক শিশু এবং একজন নির্মাণ শ্রমিক নিহত হয়েছেন।

আজ মঙ্গলবার (৫ জুন) দুপুরে উপজেলার তেতুলিয়া ইউনিয়নের পাইকুরা গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত তামিম পাইকুড়া গ্রামের হবি মিয়ার ছেলে এবং নিহত নির্মাণ শ্রমিক রিফাত (১৮) এর বাড়ি শেরপুর জেলার নকলা উপজেলায়।

মোহনগঞ্জ উপজেলা এলজিইডির ইঞ্জিনিয়ার মোঃ মাহবুব আলম জানান, প্রায় ৩ কোটি টাকা ব্যায়ে ৬৩ মিটার দৈর্ঘ্য ধলাই নদীর উপর পাইকুরা- জইনপুর গ্রামের সংযোগ ব্রীজের কাজ শুরু হয় গত ডিসেম্বরে। ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে এর নির্মান কাজ শেষ হওয়ার কথা।
পিলার ভেঙ্গে ২ জন নিহত হওয়ার ব্যাপারে তিনি বলেন, এটি একটি এক্সিডেন্ট।

নিহতদের ক্ষতিপূরণের কথা জানতে চাইলে তিনি বলেন এটি তো সম্পূর্ন ঠিকাদারের দ্বায়িত্ব, এলজিইডির কিছু না। কাজটি করছেন স্থানীয় আবুল কালাম আজাদ নামের এক ঠিকাদার, এটি উনার ব্যাপার।

মোহনগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আনসারী জিন্নাত আলী এ ব্যাপারে বলেন, দুপুরে শিশু তামিম ধলাই নদীতে গোসল করছিল। এসময় নির্মানাধীন ব্রীজের পিলার ভেঙ্গে পড়ে গিয়ে তার মাথায় লাগে। এতে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায়। অপর দিকে একই পিলার নির্মান শ্রমিক রিফাতের উপরে পড়ায় সে গুরুতর আহত হয়। স্থানীয়রা উদ্ধার করে রিফাতকে মোহনগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘেষণা করেন।