রেস্তোরাঁ থেকে বের করে দেয়া হল হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র স্যান্ডার্সকে

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | আন্তর্জাতিক ডেস্ক


মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসনের বিরুদ্ধে দেশের বহু মানুষ। ট্রাম্পর নীতিকে সমর্থন করেন না অনেকেই। মার্কিন প্রেসিডেন্টকে অমানবিক বলেও মনে করা হয়। আর সেই খেসারত দিলেন সারাহ স্যান্ডার্স। তার হয়ে কাজ করায় একটি রেস্তোরাঁ থেকে হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র সারাহ স্যান্ডার্সকে বের করে দেওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

কাগজপত্রহীন অভিবাসীদের কাছ থেকে সন্তানদের আলাদা করতে ট্রাম্প প্রশাসনের কর্মকাণ্ডের প্রতিবাদে  ২২ জুন শুক্রবার ভার্জিনিয়া অঙ্গরাজ্যের লেক্সিংটন এলাকার রেড হেন নামে একটি খাবার রেস্তোরাঁয় এ ঘটনা ঘটে। তিনি ওই রেস্তোরাঁতে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে খাবার খেতে গিয়েছিলেন।

ভার্জিনিয়ার ওই ২৬ আসন বিশিষ্ট ‘ফার্ম-টু-টেবিল’ রেস্তোরাঁটি থেকে তাকে বের করে দেয়ার বিষয়টি এক টুইট বার্তায় সত্যতা নিশ্চিত করেছেন হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র সারাহ স্যান্ডার্স।

মেক্সিকো সীমান্তে অভিবাসী শিশুদের বাবা-মার কাছ থেকে আলাদা করার বিতর্কিত সিদ্ধান্ত নিয়ে দেশে-বিদেশে তুমুল সমালোচনার মধ্যেই ট্রাম্প প্রশাসনের এ গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তাকে এ হেনস্থার শিকার হতে হল।

রেস্তোরাঁর স্বত্বাধিকারীদের একজন স্টেফানি উইলকিনসন বলেন, ট্রাম্পের এ মুখপাত্র একটি অমানবিক ও অনৈতিক প্রশাসনের পক্ষে কাজ করেন’ বলে বিশ্বাস তার। আমি স্যান্ডার্সকে বাইরে বেরিয়ে এসে আমার সঙ্গে কথা বলতে বলি। আমি আপনাকে চলে যাওয়ার জন্য বলছি, তাৎক্ষণিক উত্তরে স্যান্ডার্সও বলেন, ঠিক আছে, আমি চলে যাচ্ছি। এরপর স্যান্ডার্স তার টেবিলে ফেরত গিয়ে তার জিনিসপত্র নিয়ে রেস্তোরাঁ থেকে বের হয়ে যান। চলে যাওয়ার পর রেস্তোরাঁ কর্মীরা খাবার সরিয়ে নিয়ে টেবিল পরিষ্কার করে ফেলে।

দেশে-বিদেশে তুমুল সমালোচনার মুখে বুধবার অভিবাসীদের কাছ থেকে শিশুদের আলাদা করার কর্মসূচি স্থগিত করলেও কাগজপত্রহীন অভিবাসীদের ব্যাপারে তার প্রশাসনের ‘জিরো টলারেন্স’ অটুট থাকবে বলে জানিয়েছেন ট্রাম্প।