জানুয়ারি ২৩, ২০১৭

কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার জের: যুক্তরাষ্ট্রে স্নাইপারের গুলিতে চার পুলিশ কর্মকর্তা নিহত

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম |

146809_1যুক্তরাষ্ট্রের ডালাসে দুই স্নাইপারের বন্দুকের গুলিতে চার পুলিশ কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। হামলায় সাতজন পুলিশ কর্মকর্তা আহত হয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশের গুলিতে কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার প্রতিবাদে আয়োজিত বিক্ষোভ চলাকালে এ হামলা হয় বলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন ডালাসের পুলিশ প্রধান ডেভিড ব্রাউন।

ব্রাউনের বিবৃতিতে বলা হয়, আহত পুলিশ কর্মকর্তাদের তিনজনের অবস্থা সঙ্কটাপন্ন।

যুক্তরাষ্ট্রের ব্যাটন রুজ, লুইজিয়ানা এবং মিনেসোটার সেন্ট পলে চলতি সপ্তাহে তিনজন কৃষ্ণাঙ্গকে পুলিশের গুলি করার প্রতিবাদে এ বিক্ষোভের ডাক দেয়া হয়।

বৃহস্পতিবার ডালাস, নিউইয়র্ক, শিকাগো, ওয়াশিংটনসহ বেশ কয়েকটি শহরে কৃষ্ণাঙ্গরা বিক্ষোভ মিছিল করেছে।

লুইজিয়ানার ব্যাটন রুজ শহরে মঙ্গলবার পুলিশের গুলিতে এক কৃষ্ণাঙ্গ নিহত হয়। বুধবার মিনেসোটা অঙ্গরাজ্যে আরেকজনকে গুলি করে হত্যা করা হয়। ওই ঘটনায় প্রকাশিত ভিডিওতে দেখা গেছে মিনেসোটার সেন্ট পলে ফিলানডো ক্যাসটিলে নামের এক কৃষ্ণাঙ্গকে গুলি করছে।

ক্যাসটিলের প্রেমিকার অভিযোগ, পুলিশ ক্যাসটিলের কাছে থাকা আগ্নেয়াস্ত্রের লাইসেন্স ও রেজিস্ট্রেশনের ব্যাপারে জানতে চায়। ক্যাসটিলে পুলিশকে জানান, তার কাছে একটি পিস্তল আছে এবং তা বহন করার জন্য লাইসেন্সও রয়েছে। পরে পুলিশ তাকে গুলি করে।

মিনেসোটার গভর্নর মার্ক ডেটন সেন্ট পলে গুলির ঘটনা তদন্তে কেন্দ্রীয় তদন্ত কমিটি গঠণ করার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, ক্যাসটিলে যদি শেতাঙ্গ হতো তাহলে তাকে গুলি করা হতো না।

এদিকে পরপর দুদিন দুই কৃষ্ণাঙ্গকে হত্যার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা বলেছেন, এটা শুধু কৃষ্ণাঙ্গ ইস্যু নয়। এটা কেবল হিসপানিক ইস্যু নয়। এটা আমেরিকান ইস্যু এবং আমাদের সবার এ ব্যাপারে সচেতন হতে হবে।

তিনি বলেন, নিরপেক্ষ মানুষদের এ ব্যাপারে সচেতন হওয়া উচিৎ।

২০১৫ সালে যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশের গুলিতে ১১৫২ জন নিহত হয়েছে। এর মধ্যে ৩০ শতাংশই কৃষ্ণাঙ্গ।

সূত্র: রয়টার্স, এপি, আলজাজিরা