আর কত মায়ের বুক খালি হলে সরকার হত্যা লীলা বন্ধ করবে: জামায়াত

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম |

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীজামায়াতে ইসলামীর ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল ডা. শফিকুর রহমান বলেছেন, “পুলিশ ঝিনাইদহ সদর উপজেলার ছাত্রশিবির নেতা সাইফুল ইসলামকে অন্যায়ভাবে গুলি করে হত্যা করে দেশের আইন, সংবিধান ও মানবাধিকার চরমভাবে লংঘন করেছে।

মঙ্গলবার দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

ডা. শফিক বলেন, শিবির নেতা সাইফুল ইসলামকে পুলিশ গত ৩ জুলাই নিজ বাসা থেকে আটক করে নিয়ে যায় এবং আটক করার কথা অস্বীকার করতে থাকে। গত ১৮ জুলাই দিবাগত রাতে তথাকথিত বন্দুকযুদ্ধের নাটক সাজিয়ে পুলিশ তাকে নৃশংসভাবে গুলি করে হত্যা করেছে। এভাবে ছাত্র ও যুবকদের আটক করে ঠান্ডা মাথায় পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে সরকার গোটা ঝিনাইদহ জেলাকে এক মৃত্যু উপত্যকায় পরিণত করেছে।

তিনি বলেন, আজ ঝিনাইদহ জেলায় পুত্র হারা পিতা-মাতা এবং ভাই হারা ভাই-বোনদের কান্নায় আকাশ বাতাস ভারি হয়ে উঠছে। এত মায়ের বুক খালি হওয়া সত্বেও সরকারের হৃদয়ে কোন দয়া ও করুণা হচ্ছে না। আর কত মায়ের বুক খালি হলে সরকার এ হত্যা লীলা বন্ধ করবে? সরকারের পাশবিকতা ও বর্বরতা সকল সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে। এখনো ঝিনাইদহে ইসলামী ছাত্রশিবিরের যে সব নেতা-কর্মী পুলিশের হাতে বন্দি আছে তাদের অবিলম্বে মুক্তি প্রদান এবং সাইফুল ইসলামকে পুলিশের গুলি করে হত্যা করার ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত করে দোষী ব্যক্তিদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদান করার জন্য আমি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।