বাংলাদেশে জামায়াত শিবিরেরও রাজনীতি করার অধিকার আছে : ইমরান সরকার (ভিডিও)

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | প্রবাস ডেস্ক


জামায়ত-শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধ চেয়ে একসময় পুরো দেশ তোলপাড় করে ফেলেছিলেন ইমরান এইচ সরকার…অথচ নিউ ইয়ের্ক এসে…বলছেন, তাদের রাজনীতি করতে দিতে হবে….আহহহ..হাওয়া পাল্টাইছে…

Posted by Sajid Haque Shoumoo on Saturday, September 1, 2018

সরকারের সমর্থনের ২০১৩ সালে শাহবাগে গজিয়ে উঠা তথাকথিত গণজাগরণ মঞ্চের একাংশের মুখপাত্র ড. ইমরান এইচ সরকার বলেছেন, বাংলাদেশে যারা জামায়াত শিবির করে তারা কি বাংলাদেশের নাগরিক নয়? তারাও তো বাংলাদেশের নাগরিক। তাহলে তাদেরও কথা বলার এবং রাজনীতি করারও অধিকার আছে।

গতকাল ২ সেপ্টেম্বর রবিবার নিউইয়র্কে একটি অনলাইন টেলিভিশনের ভিডিও সাক্ষাতকারে তিনি এসব কথা বলেন।

ইমরান সরকার বলেন, যদি কোন ব্যক্তিযুদ্ধাপরাধী না হয় তবে অবশ্যই তার বাংলাদেশে বাঁচার অধিকার আছে। তার কথা বলার অধিকার আছে এবং রাজনীতি করারও অধিকার আছে। যারা জামায়াত শিবির করে তারা কি বাংলাদেশের নাগরিক নয়? তারাও তো বাংলাদেশের নাগরিক। তাহলে তাদেরও কথা বলার এবং রাজনীতি করারও অধিকার আছে।

তিনি বলেন, আমরা আদর্শিক কারণে জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি জানিয়েছি। যেহেতু তার আদর্শের ভিত্তিতে স্বাধীনতা যুদ্ধের বিরোধিতা করেছিল। আমরা তার একটি সমাধান চেয়েছি। কিন্তু আমরা বলিনি যে, কেউ জামায়াত করলেই তাকে ধরে নিয়ে যাবেন। সে যদি প্রকৃত অপরাধী হয় তবে তাকে ধরে নিয়ে যাবেন। কিন্তু অন্যায় না করলে তাকে কেন ধরে নিয়ে যাবেন?

উল্লেখ্য, ড. ইমরান এইচ সরকার ২০১৩ সালের যুদ্ধাপরাধীদের সর্বোচ্চ শাস্তি ফাঁসির দাবিতে রাজধানীর শাহবাগে গড়ে উঠে গনজাগরণ মঞ্চের একাংশের মুখপাত্র হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। প্রতিষ্ঠাকাল থেকেই তার নেতৃত্বে গণজাগরণ মঞ্চ যুদ্ধাপরাধীদের সর্বোচ্চ সাজা এবং জামায়াত শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবিতে মাঠে সোচ্চার ছিলেন।


Notice: Undefined index: email in /home/insaf24cp/public_html/wp-content/plugins/simple-social-share/simple-social-share.php on line 74