প্রচলিত সন্ত্রাসবাদ ইসলামের জিহাদের সম্পূর্ণ বিপরীত: ড. আ ফ ম খালিদ

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম |

ড. আ ফ ম খালিদ হোসেনচট্টগ্রাম ওমরগণি এম.ই.এস কলেজের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও মাসিক ম্যাগাজিন ‘আত-তাওহীদ’-এর সম্পাদক ড. আ ফ ম খালিদ হোসেন বলেন, বর্তমানে প্রচলিত জঙ্গি ও সন্ত্রাসবাদ ইসলামের জিহাদের সম্পূর্ণ বিপরীত। রাসুল সা.এর নেতৃত্বে ২৬টি জিহাদে কোন নিরীহ মানুষ, নারী ও শিশু হত্যার শিকার হয়নি এবং তিনি বিজয়ী হয়েছিলেন। এটাই হচ্ছে প্রকৃৃত জিহাদ।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে জাতীয় ওলামা মাশায়েখ আইম্মা পরিষদ আয়োজিত ‘সন্ত্রাস- উগ্রবাদ ও ইসলাম’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, রাসূল সা. অন্যকোন ধর্মের ধর্মযাজককেও হত্যার নিষেধ করেছেন। তিনি বলেন, আল্লাহু আকবার বলে হত্যা করলেই সে মুসলমান হয় না। যেমন খারেজীরা হযরত আলী রা.কে আল্লাহর জিকির করতে করতে হত্যা করেছিল, এদের কেউ মুসলমান ছিল না।

olamaসংগঠনের আহ্বায়ক মুফতি হাবিবুর রহমান মিছবাহ এর সভাপতিত্বে এবং নগর সদস্য সচিব মুফতি মুহিব্বুল্লাহ এর সঞ্চালনায় আয়োজিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, আল্লামা নুরুল হুদা ফয়েজী ড. মাওলানা ঈসা শাহেদী, মেজর [অব:] আখতারুজ্জামান, প্রফেসর ড. কে এম সাইফুল ইসলাম খান, অধ্যাপক এটিএম হেমায়েত উদ্দিন, মুফতি মুহিব্বুল্লাহিল বাকি আন নদভী, অধ্যাপক আশরাফ আলী আকন, মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, কবি মুহিব খান, মুফতি অহিদুল আলম, মাওলানা আব্দুর রহিম কাসেমি, মাওলানা আনসার আহমদ (পীর সাহেব কুমিল্লা), মাওলানা মাহমুদুর রহমান, মাওলানা ইউনুস ঢালী, মাওলানা মাসুম বিল্লাহ, মুফতি রফিকুন্নবী হক্কানী, মাওলানা সিরাজুল ইসলাম প্রমুখ।

সভায় অলোচকবৃন্দ বলেন, কিছু তথাকথিত বুদ্ধিজীবিরা সন্ত্রাস, উগ্রবাদের অজুহাতে “জিহাদ” নামক এক মহান ইবাদতকে কলুষিত করে বক্তব্য দিচ্ছে। সন্ত্রাসীরা কখনো মুজাহিদ হতে পারে না। জিহাদী বইয়ের নামে মূলত: আজ কুরআন বাতিলের চক্রান্ত চলছে। সরকারকে অনুরোধ করে বলবো জিহাদী বইয়ের তালিকা প্রনয়ন করে জাতির সামনে প্রকাশ করুন।