মিরপুরে অত্যাধুনিক পাবলিক টয়লেটের উদ্বোধন করল ডিএনসিসি

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


সাধারণ পথচারী ও নাগরিকদের জন্য স্বাস্থ্যসম্মত স্যানিটেশন সুবিধা নিশ্চিত করতে মিরপুরে অত্যাধুনিক সুযোগ-সুবিধা সম্বলিত পাবলিক টয়লেটের উদ্বোধন করেছে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন-ডিএনসিসি।

আজ ২০ অক্টোবর শনিবার ডিএনসিসির প্যানেল মেয়র মো. জামাল মোস্তফা মিরপুর-১২ এ একটি আধুনিক সুবিধা সম্বলিত পাবলিক টয়লেট জনগণের জন্য উন্মুক্ত করে দেন।

জামাল মোস্তফা বলেন, ডিএনসিসির নিজস্ব অর্থায়নে স্থাপিত আধুনিক এ পাবলিক টয়লেটি এ অঞ্চলে চলাচলরত জনগণের স্যানিটেশন সুবিধা নিশ্চিত করতে ভূমিকা রাখবে। আধুনিক ও দৃষ্টিনন্দন, প্রতিবন্ধীবান্ধব এই পাবলিক টয়লেটে নারী ও পুরুষদের জন্য আলাদা চেম্বার, হাত ধোওয়ার ব্যবস্থা, বিশুদ্ধ খাবার পানি, সার্বক্ষণিক বিদ্যুৎ, স্যানিটারি ন্যাপকিন, নিরাপত্তার জন্য সিসিটিভি ক্যামেরাসহ পেশাদার পরিচ্ছন্নকর্মী ও মহিলা কেয়ারটেকারের ব্যবস্থা রয়েছে।

এসময় পাবলিক টয়লেটটির সুষ্ঠু ব্যবহার ও রক্ষণাবেক্ষণের জন্য সবার প্রতি আহ্বান তিনি।

তিনি বলেন, নগরবাসীকে উন্নত সেবা দেওয়ার জন্য আমরা ১০০টি পাবলিক টয়লেট নির্মাণের পরিকল্পনা করেছি। এরইমধ্যে ২০টি সম্পন্ন হয়েছে, আরও ৮০টির জন্য জায়গা খুঁজছি। নগরবাসীর প্রয়োজন মোতাবেক আরও ৮০টি পাবলিক টয়লেট করবো। এছাড়া অত্যাধুনিক যাত্রী ছাউনি করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি।

৭৭ লাখ ৫০ হাজার টাকা ব্যয়ে ১ হাজার ৫০ বর্গফুট জায়গায় নির্মিত এ পাবলিক টয়লেটে পুরুষ ও নারীদের জন্য আলাদা ওয়াশরুম এবং টয়লেট ব্যবস্থা রয়েছে। এখানে নারী-পুরুষ উভয়ের জন্য দু’টি করে হাই কমোড ও দু’টি প্যান টয়লেট রয়েছে। দু’পাশে তিনটি করে বেসিন বসানো। এছাড়া একটি করে ড্রিংকিং ওয়াটার ফিল্টার, ওজুখানা, দু’টি করে শাওয়ার ব্যবস্থা রয়েছে। তাছাড়া থাকছে চারটি করে লকার ব্যবস্থা।

এসব সুবিধা ভোগ করার জন্য সিটি করপোরেশনকে দিতে হবে নির্ধারিত ফি। টয়লেট ব্যবহার ৫ টাকা, গোসল ১০ টাকা এবং বিশুদ্ধ খাবার পানি প্রতি গ্লাস ১ টাকা এবং লকার সুবিধার জন্য দিতে হবে ৫ টাকা।


Notice: Undefined index: email in /home/insaf24cp/public_html/wp-content/plugins/simple-social-share/simple-social-share.php on line 74