ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


আজ পবিত্র হজ্ব। হজ্ব উপলক্ষে সব হাজ্বী এখন আরাফাতমুখী। হজ্বপালনের জন্য আরাফাতের ময়দানে লাখো মুসুল্লি উপস্থিত। বিশ্বের ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের চোখ এখন আরাফাত ময়দানের দিকে।

জিলহজ্ব মাসের ৯ তারিখ হজ্ব  অনুষ্ঠিত হয়। সৌদি আরবে আজ জিলহজ্ব মাসের ৯ তারিখ।

চলতি বছর হজ্বপালনের জন্য বিভিন্ন দেশ থেকে ১৮ লাখ ৩৮ হাজার ৩৩৯ জন হজ্বযাত্রী এসেছেন। এছাড়াও সৌদি আরবের নাগরিক ও সৌদি আরবে প্রবাসী সাড়ে ৫ লাখ মানুষ সহ এ বছর প্রায় ২৫ লাখ মানুষ হজ্ব পালন করছেন।

হজ্বের অন্যতম ফরজ হলো আরাফাতের ময়দানে অবস্থান করা। মূলত ৯ জিলহজ্ব আরাফাতের ময়দানে অবস্থান করাই হজ্ব।

হজ্বের আনুষ্ঠানিকতার অংশ হিসেবে সকালে হাজিরা মিনা থেকে রওনা হয়ে আরাফাতের ময়দানে পৌঁছচ্ছেন। লাখো হাজিদের কণ্ঠে ‘লাব্বাইকা আল্লাহুম্মা লাব্বাইক, লাব্বাইকা লা শারিকা লাকা লাব্বাইক, ইন্নাল হামদা, ওয়াননিমাতা লাকা ওয়ালমুলক, লা শারিকা লাকা’ ধ্বনিতে মুখরিত হয়ে গেছে আরাফাতের ময়দান।

আজ আরাফাতের ময়দানে হাজিরা জোহরে ও আসরের নামাজ আদায় করবেন। এছাড়া দোয়া-মোনাজাত, কোরআন তেলায়ত ও নফল নামাজ আদায় করে সময় কাটাবেন। আরাফাতের ময়দানের দোয়া করা সবচেয়ে বেশি ফজিলতের কাজ।

৯ জিলহজ্ব সকাল থেকে পুরুষ হাজিরা উচ্চস্বরে তাকবীর পাঠ করে থাকেন, নারীরা তাকবীর পাঠ করবেন নিম্ন আওয়াজে।

এই ময়দানে ৬৩১ খ্রিস্টাব্দে মহানবী হজরত মুহাম্মাদ  সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের নিকট হজ্ব বিধান নাজিল হলে তিনি ৬৩২ খ্রিস্টাব্দে এক লাখ চল্লিশ হাজার সাহাবিসহ হজ্ব পালন করেন।

মহানবী হজরত মুহাম্মাদ  সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ৯ জিলহজ্ব আরাফাতের ময়দানে উটের পিঠে আরোহণ করে বিদায় হজ্বের খুতবা দিয়েছিলেন।

ওই খুতবার অনুসরণে আরাফাত ময়দানে অবস্থিত মসজিদে নামিরা থেকে হজ্বের খতিব উপস্থিত হাজিদের উদ্দেশে খুতবা প্রদান করবেন। স্থানীয় সময়ানুসারে সাধারণত খুতবা শুরু হয় দুপুর সাড়ে ১২টায়।

খুতবার পর সূর্যাস্ত পর্যন্ত তালবিয়া, তাহমিদ, দোয়া-দুরুদ, ইসতেগফার কোরআন তেলাওয়াত ও আল্লাহতায়ালার দরবারে কান্নাকাটি করে সময় পার করবেন।