আসুন, ভালো মানুষগুলোর পক্ষে সোচ্চার হই, না হলে তারা হারিয়ে যাবে : তুহিন মালিক

সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৯

ডক্টর তুহিন মালিক | সংবিধান বিশেষজ্ঞ


ক্যাসিনো জুয়ার বিরুদ্ধে চলমান অভিযানের বিরুদ্ধে ক্ষোভে ফেটে পরা হুইপ শামসুল হক চৌধুরীর একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। হুইপের মতে ক্যাসিনো বন্ধ করা যাবে না, এগুলো বন্ধ করলে নাকি ছেলেরা বেকার হয়ে যাবে, রাস্তায় ছিনতাই করবে।

সাইফুল আমিন, একজন পুলিশ পরিদর্শক। পুলিশে চাকরী করলেও সবার মত তিনিও দেশের একজন নাগরিক। চাকরীর ভয় ও গডফাদারদের ক্ষমতার ভয়ে এতদিন হয়ত চুপ থেকেছেন। এবার এই পুলিশ পরিদর্শক চলমান অভিযানে সাহস পেয়ে গোপন কথা ফাঁস করে বলেন- ‘চট্টগ্রাম আবাহনী ক্লাবের জুয়ার আসর থেকে গত পাঁচ বছরে ক্লাবটির মহাসচিব ও জাতীয় সংসদের হুইপ শামসুল হক চৌধুরী ১৮০ কোটি টাকা আয় করেছেন।’

বিষাক্ত সাপের লেজে পা দিলেন এই পুলিশ পরিদর্শক। ব্যাস, দুর্দান্ত প্রভাবশালী হুইপের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনার অপরাধে সেই পুলিশ পরিদর্শক সাইফুল আমিনকে আজ বরখাস্ত করা হলো!

সেই পুলিশ পরিদর্শকের অপরাধের যেন কোন শেষ নাই! ‘শৃঙ্খলা ভংগ করেছেন’! ‘পুলিশ বাহিনীর ভাবমূর্তি ব্যাপকভাবে ক্ষুন্ন করেছেন’! ‘অসদাচরণ করেছেন’! তাই দয়াবান আইনে চাকরি হতে বরখাস্ত!

সরকারের চোখে এই পুলিশ পরিদর্শক ‘পুলিশ বাহিনীর ভাবমূর্তি ব্যাপকভাবে ক্ষুন্ন করেছেন’। কিন্তু বাস্তবে এই পুলিশ পরিদর্শক দূর্নীতিতে নিমজ্জিত পুলিশ বাহিনীর প্রতি দেশের মানুষের অন্তরে কিঞ্চিত পরিমানে হলেও শ্রদ্ধা ও সম্মান অর্জন করে গেছেন।

আসুন, আমরা ভালো মানুষগুলোর পক্ষে সোচ্চার হই। না হলে, একদিন ভালো মানুষগুলো সব হারিয়ে যাবে।

ফেসবুক থেকে নেয়া


জাতিসংঘের দেয়া ভাষণে ফিলিস্তিন, কাশ্মীর ও সিরিয়া ইস্যু তুলে ধরলেন এরদোগান

সেপ্টে ২৫, ২০১৯ | ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | সাজ্জাদ আল ফাওয়াজ


জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭৪ তম অধিবেশনে দেয়া ভাষণে ফিলিস্তিন, কাশ্মীর ও সিরিয়াসহ মুসলিম বিশ্বের অন্যান্য সমস্যাগুলো বিশ্ব নেতাদের সামনে তুলে ধরেছেন মুসলিম বিশ্বের প্রভাবশালী নেতা তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোগান।

বিশ্বব্যাপী শান্তি ও সুরক্ষার জন্য হুমকিসরূপ বেশ কয়েকটি সমস্যার কথা তুলে ধরে এরদোগান বলেন, আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়গুলো ক্ষুধা, দুর্দশা, জলবায়ু পরিবর্তন ইত্যাদির চ্যালেঞ্জগুলির স্থায়ী সমাধান করতে ব্যর্থ হয়েছে, এছাড়াও সঙ্কট মোকাবেলায় পদক্ষেপ নিতে ব্যর্থ হওয়ার জন্য বিশ্ব শক্তিগুলি আজ সমালোচিত।

মঙ্গলবার (২৪ সেপ্টেম্বর) জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭৪ তম অধিবেশনে তিনি ভাষণ প্রদান করেন।

সিরিয়ায় একটি নিরাপদ অঞ্চল প্রতিষ্ঠার প্রস্তাবিত পরিকল্পনাকে সমর্থন করার জন্য বিশ্ব নেতাদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে এরদোগান বলেন, বিশ্ব আজ ভূলে গিয়েছে সেই সিরীয় শরণার্থী শিশু আইলানকে যার পানিতে ভেসে থাকার করুন দশা ঘটেছিল।

সিরিয়ার ইদলিবের সুরক্ষার জন্য তুরস্কের প্রচেষ্টা সমর্থন করার আহ্বান জানান প্রেসিডেন্ট এরদোগান।

এরদোগান আরও বলেন, সিরিয়ার রাজনৈতিক ও আঞ্চলিক ঐক্যের জন্য সাংবিধানিক কমিটির দক্ষ কার্যকারিতার ভূমিকা পালন করতে হবে।

তিনি বলেন, উত্তর সিরিয়ায় পিকেকে, ওয়াইপিজি সিরিয়ান ডেমোক্র্যাটিক ফোর্সেস (এসডিএফ) এর ছদ্মবেশে কাজ করছে এবং এই অঞ্চলের সুরক্ষার জন্য অবশ্যই তাদের মোকাবেলা করতে হবে।

তিনি তুরস্কের অবস্থানকে “সর্বাধিক উদার দেশ” হিসাবে তুলে ধরে বলেন, ৫ মিলিয়ন বাস্তুচ্যুতদের সংঘাত, অনাহার, নিপীড়ন থেকে মুক্ত করেছে তুরস্ক।

তিনি আরও বলেন, ২০১৯ সালে তুরস্ক ৩২০০০ অভিবাসীকে সমুদ্রে ডুবে যাওয়ার হাত থেকে রক্ষা করেছিল এবং সিরিয়াসহ অন্যান্য ৫৮,০০০ জনকে প্রত্যাবাসিত করেছিল।

হিংস্র আসাদ সরকারের কারণে ২০১১ এর প্রথম থেকেই সিরিয়া এক ভয়াবহ গৃহযুদ্ধের কবলে পড়েছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে প্রকাশিত পরিসংখ্যান অনুসারে এতে হাজার হাজার মানুষ মারা গেছে এবং আরও এক কোটিরও বেশি মানুষ বাস্তুচ্যুত হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত আগস্টে- বাস্তুচ্যুত সিরিয়ানরা স্বদেশ প্রত্যাবর্তন করতে চাইলে তাদের সুবিধার্থে একটি শান্তি করিডোর তৈরির বিষয়ে সম্মত হয়েছিল তুুর্কি ও মার্কিন কর্তৃপক্ষ।

কাশ্মীর ইস্যুতে এরদোগান বলেন, কাশ্মীরি জনগণের সুরক্ষিত ভবিষ্যতের দিকে নজর দিয়ে প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তান ও ভারতের সংলাপের মাধ্যমে ন্যায়বিচারের ভিত্তিতে সমস্যা সমাধান করা জরুরি।

ইসরাইলের ব্যাপারে কার্যকরী পদক্ষেপ নিতে ব্যর্থ হওয়ার জন্য আমেরিকার কঠোর সমালোচনা করেন তিনি।

১৯৬৭ সালের সীমান্তের ভিত্তিতে অবিলম্বে একটি স্বাধীন প্যালেস্টাইন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার পরামর্শ দেন এরদোগান।

তিনি বিশ্ববাসীর শান্তি, সমৃদ্ধি, ন্যায়বিচার, শান্তিপূর্ণ ও নিরাপদ ভবিষ্যতের বার্তা দিয়ে বক্তব্য শেষ করেছেন।

সূত্র : ডেইলি সাবাহ