করোনা সন্দেহে ইজরায়েলে বেদম মার খেয়ে হাসপাতালে ভর্তি ভারতীয় বংশোদ্ভূত

তিনি চিনা। সেখান থেকে করোনাভাইরাস এনে ছড়াচ্ছেন ইহুদীবাদী সন্ত্রাসীদের অবৈধ রাষ্ট্র ইজরায়েলে। এই সন্দেহে এক ভারতীয় বংশোদ্ভূত ব্যক্তিকে বেদম পেটানো হল ইজরায়েলে।

শনিবার (১৪ মার্চ) ঘটনাটি ঘটেছে ইজরায়েলের তিবেরিয়াস শহরে। মারের জেরে বুকে একাধিক আঘাত নিয়ে বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তিনি।

ভারতীয় বংশোদ্ভূত ২৮ বছরের ওই ব্যক্তির নাম আম-শালেম সিঙ্গসন। তিনি বেনি মেনাশে সম্প্রদায়ভুক্ত। উত্তর-পূর্ব ভারতের মণিপুর ও মিজোরামে বসবাস করেন ওই সম্প্রদায়ের মানুষরা। তিন বছর আগে পরিবারকে নিয়ে ভারত থেকে ইজরায়েলে গিয়েছিলেন তিনি।

সে দেশের এক টিভি মিডিয়ার খবর অনুসারে, শনিবার দুই ব্যক্তি সিঙ্গসনকে ‘চাইনিজ’ বলে চিহ্নিত করেন এবং করোনা ছড়ানোর জন্য তাকে দায়ী করেন। তার পরই বেধড়ক মারধর করা হয় ভারতীয় এই বংশোদ্ভূতকে। আক্রমণকারীদের তিনি বার বার বলেছিলেন, তিনি চিন থেকে আসেননি। এবং তিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত নন। কিন্তু তার কথা কে শোনে!

বেনি মেনাশে সম্প্রদায়ের মানুষদের ইজারায়েলে অভিবাসন দেওয়ার কাজ করে শাভেই ইজরায়েল নামের এক সংস্থা। এই ঘটনার জেরে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন সেই সংস্থার চেয়ারম্যান মিকেল ফঁয়েদ। তিনি বলেছেন, ওই আক্রমণে আমরা মর্মাহত। গোটা ঘটনার দ্রুত তদন্ত ও দোষীদের শাস্তির দাবিতে আমরা ইজরায়েলি পুলিশের কাছে আবেদন জানিয়েছি।

 

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

Leave a Reply