করোনার প্রতিষেধক দাবি করে গরুর মূত্র বিক্রি করছে বিজেপি কর্মীরা

কোভিড–১৯ বা করোনা ভাইরাস রুখতে গরুর মূত্র বিক্রি করায় ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের জোড়াবাগান থানায় অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মামলা করা হল। ওই ব্যক্তিরা দেশটির উগ্র হিন্দুত্ববাদী বিজেপি ঘনিষ্ঠ বলেই প্রাথমিক জানা গেছে।

ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৬৯/‌২৭৮/‌১১৪ ধারায় মামলা রুজু হয়েছে। জোড়াবাগান ট্র‌্যাফিক পুলিশের হোমগার্ড পিন্টু প্রামাণিক এই মর্মে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন যে, সোমবার দুপুর ২.‌২০ মিনিট নাগাদ বিকে পাল অ্যাভিনিউ এবং এনজি স্ট্রিটের মোড়ে তিনি নিজের ডিউটি করছিলেন। সেসময় করোনা ভাইরাস রুখতে উপকারী চরণামৃত বলে তাকে জোর করে গরুর মূত্র পান করানো হয়।

সোমবারই ডানকুনি, আসানসোলে, কোভিড–১৯–এর অব্যর্থ ওষুধ বলে গরুর মূত্র এবং গোবর বিক্রি হয়েছিল। উগ্র ‍হিন্দুত্ববাদী বিজেপির পক্ষ থেকে জোড়াসাঁকোয় গরুপুজাও করা হয়েছিল। পুজা দেখতে আসা মানুষদের হাতে চরণামৃত বলে গরুর মূত্র দেওয়া হয়েছিল। অনলাইনেও তুলসী–এলাচের স্বাদযুক্ত গরুর মূত্র ৩২০ টাকায়, তুলসী–জোয়ানের স্বাদযুক্ত চার বোতল গরুর মূত্র ২,১২০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এই পুরো ঘটনার পিছনে হিন্দুত্ববাদী বিজেপির উদ্যোগ রয়েছে বলেই মনে করা হচ্ছে।

গত সপ্তাহেই দেশটির উত্তরপ্রদেশে স্বামী চক্রপাণি মহারাজের উদ্যোগে হিন্দু মহাসভা গরুর মূত্র পান এবং গোবরসহ অন্নান্য সরঞ্জাম দিয়ে তৈরি পায়েস খাওয়ার আয়োজন করেছিল। সেখানেও বলা হয়েছিল এই দুটি পেটে গেলে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের ভয় নেই।

সূত্র: আজকাল

Leave a Reply