গাছের সঙ্গে বেঁধে মাদরাসা ছাত্রকে নির্যাতনের ঘটনায় বাবা-ছেলে গ্রেফতার

নভেম্বর ২, ২০১৯ নিজস্ব প্রতিনিধি

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে নুর মোহাম্মদ সজিব (১২) নামে এক মাদ্রাসাছাত্রকে মোবাইল কার্ড চুরির অভিযোগে গাছের সাথে বেঁধে নির্যাতনের ঘটনায় দুই জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত দুইজনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

শনিবার (২ নভেম্বর) দুপুরে গ্রাম পুলিশ আব্দুল্লাহ ও তার ছেলে ইসমাইল হোসেন মিলনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

নির্যাতিত শিশু নুর মোহাম্মদ সজিব উপজেলার চরহাজারী ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ধনী পাড়া এলাকার নুরনবী মানিকের ছেলে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ধনীপাড়া এলাকায় শুক্রবার বিকেলে আবদুল্লাহ চৌকিদারের দোকান থেকে ১২০ টাকা মূল্যের মোবাইল কার্ড চুরি করার অভিযোগে নুর মোহাম্মদ সজিবকে গাছের সাথে বেঁধে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করে আবদুল্লাহ চৌকিদার ও তার ছেলে মিলন।

এ ঘটনায় নির্যাতিত শিশুর মা খুরশিদা বেগম শেফালী ঘটনাটি পুলিশকে জানায় এবং শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টায় আহত সজিবকে কোম্পানীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে এ ঘটনায় অভিযোগ দায়েরের পর পুলিশ আব্দুল্লাহ ও তার ছেলে ইসমাইল হোসেন মিলনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

কোম্পানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আরিফুর রহমান জানান, অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে অভিযুক্ত গ্রাম পুলিশ আব্দুল্লাহ ও তার ছেলে ইসমাইল হোসেন মিলনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।