করোনায় আক্রান্ত ও মৃত্যুর তথ্য গোপন করছে সরকার: রিজভী

বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, সরকার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃত্যুর তথ্য গোপন করছে। তারা তথ্য গোপন করে অতি সামান্য আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা প্রকাশ করে আসছে।

বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) দুপুরে নয়া পল্টনে বিএনপি’র দলীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, বর্তমানে জ্যামিতিক হারে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রতিদিনই হাজার হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করছে। সাধারণ মানুষ বিনা চিকিৎসায় ভেন্টিলেটর, অক্সিজেন, হাসপাতালের বেড ইত্যাদির অভাবে কাতরাচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রীসহ অন্যান্য নেতা-মন্ত্রীরা নিরাপদে আইসোলেশনে থেকে নির্দেশ দিয়ে যাচ্ছেন। আর ঢাকাসহ কোথাও আইসিইউ খালি নেই। অক্সিজেনের অভাবে মায়ের কোলেই সন্তান মারা যাচ্ছে। হাসপাতাল থেকে করোনা রোগীকে ফেরত দেওয়া হচ্ছে। আর সরকার চোখ বুঝে ধ্যান করছে। মনে হচ্ছে সরকারের কোনোই দায়িত্ব নেই।

বিএনপির এই নেতা বলেন, মহামারীতে শিক্ষা ব্যবস্থা ও শিক্ষার্থীদের করুণ অবস্থা চলছে। শিক্ষার হাব খ্যাত দেশগুলো যেমন গ্রেট বৃটেন, ভারত, মালয়েশিয়া, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা বা আমেরিকাসহ কোনো দেশেই আজকের বাস্তবতায় অটো পাস দেওয়া হয়নি। সকল দেশেই শিক্ষার্থীর মেধার মূল্যায়নের জন্য পরীক্ষার বিকল্প শুধু পরীক্ষাই রাখা হয়েছে। আর আমাদের দেশে অটোপাস আর ফটোকপির পাস এসব করে সরকার একটি প্রজন্মকে অন্ধকারের দিকে ঠেলে দিচ্ছে। সরকার সম্পূর্ণ উল্টো পথে, উল্টো রথে চলছে। সব চলছে করোনাভাইরাসের অজুহাতে। শুধু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য বন্ধ করে রাখা হয়েছে। সরকার সারাক্ষণ ডিজিটাল বাংলাদেশের স্লোগান দিচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য আবুল খায়ের ভুঁইয়া, যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের সবশেষ নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী ইশরাক হোসেন, কেন্দ্রীয় নেতা আবদুস সালাম আজাদ, সেলিমুজ্জামান সেলিম, এম এ খালেক, মহানগর নেতা নবী উল্লাহ নবী প্রমুখ।