করোনা আক্রান্ত এমপির সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশ

করোনা আক্রান্ত নওগাঁ–২ আসনের সংসদ সদস্য শহীদুজ্জামান সরকারের সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

শনিবার (০২ মে) বিকেলে ডেপুটি সিভিল সার্জন মঞ্জুর মোরশেদ এ তথ্য জানান।

জেলা ডেপুটি সিভিল সার্জন মঞ্জুর মোরশেদ জানান, শহীদুজ্জামান সরকার গত ২৭ এপ্রিল সকালে অনুষ্ঠিত করোনা সংকট মোকাবেলায় ত্রাণের সমন্বয়, বোরো মৌসুমের ধান কাটাসহ নানাবিধ বিষয় নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্সে যোগদান করেন। জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে কনফারেন্স চলাকালীন আক্রান্ত সাংসদের সংস্পর্শে এসেছিলেন নওগাঁ-৫ আসনের সাবেক সাংসদ ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল মালেক, নওগাঁ-৬ আসনের সাংসদ ইসরাফিল আলম, নওগাঁ-৩ আসনের সাংসদ ছলিম উদ্দিন তরফদার সেলিম, জেলা প্রশাসক হারুন অর-রশিদ, পুলিশ সুপার প্রকৌশলী আব্দুল মান্নান মিয়া বিপিএম ও জেলা সিভিল সার্জন আখতারুজ্জামান আলাল।

তিনি বলেন, এরপর শহীদুজ্জামান সরকার মঙ্গলবার নিজ নির্বাচনী এলাকা থেকে ঢাকায় যান এবং সরকারি ন্যাম ভবনে (সংসদ সদস্য ভবন) ওঠেন। এরপর তার শরীরে জ্বর দেখা দেয় এবং সেই সাথে হালকা কাশি হচ্ছিল। তখন আইইডিসিআরে তার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করানো হয়। শুক্রবার বিকেল ৫টায় আইইডিসিআর থেকে রিপোর্ট পাঠানো হয় যেখানে করোনাভাইরাস পজেটিভ আসে বলে জানানো হয়। এই প্রথম বাংলাদেশের কোনো সংসদ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ সংবাদের ভিত্তিতে তার সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের শনিবার বিকেল থেকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার অনুরোধ করা হয়েছে। আগামী ৪ মে তাদের সবার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হবে।