কুষ্টিয়ায় ৭ মাসের শিশু আইসোলেশনে; বাড়ি লকডাউন

কুষ্টিয়ায় করোনাভাইরাস আক্রান্ত সন্দেহে সাত মাসের এক শিশুকে আইসোলেশন ওয়ার্ডে নেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) করোনা আক্রান্ত সন্দেহ হলে তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে আইসোলেশন ওয়ার্ডে নেওয়া হয়। আইসোলেশনে নেওয়ার পরপরই দুপুরে কুষ্টিয়া শহরে শিশুটির পিতামাতার আবাসস্থল লকডাউনের ঘোষণা দেওয়া হয়।

কুষ্টিয়া সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) জুনায়ের হোসেন চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

এ বিষয়ে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. নূরুন নাহার বেগম জানান, গত ২৩ মার্চ শিশুটিকে হাসপাতালে ভর্তি করেন তার পরিবারের সদস্যরা। ওই সময় তার জ্বর, ঠাণ্ডা, কাশি ছিল। বৃহস্পতিবার হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানতে পারেন শিশুটির বাবা গত ৯ মার্চ সিঙ্গাপুর থেকে দেশে এসেছেন। তিনি পরিবারের সঙ্গে ছিলেন। এ তথ্য জানার পর শিশুটিকে আইসোলেশনে নেওয়া হয়েছে।

এদিকে বাড়ি লকডাউন প্রসঙ্গে ইউএনও জুনায়ের হোসেন চৌধুরী জানান, লকডাউন করা বাড়িটিতে ৫ জন সদস্য রয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতেই বাড়িটি লকডাউন করা হয়।

Previous post দেশে ‘চিকিৎসা জরুরি অবস্থা’ জারির আহ্বান বিএনপির
Next post করোনাভাইরাসে মৃত্যুতে চীনকে ছাড়ালো স্পেন