ফাইল ছবি

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আমরা ক্ষমতায় আসার আগে পাসের হার কী ছিল, আর এখন কী? পরীক্ষায় কত শতাংশ পাস হলো, আর কত শতাংশ পাস হলো না, তা বিবেচ্য বিষয় নয়, শিক্ষার্থীদের মানুষের মতো মানুষ হতে হবে।

আজ রোববার সকাল ১০টার দিকে চলতি বছরের উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষার ফলের অনুলিপি প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। এ সময় প্রধানমন্ত্রী এ পরীক্ষায় যারা ফল খারাপ করেছে, তাদের দিকেও বিশেষ নজর ও উৎসাহ দেওয়ার আহ্বান জানান।

শেখ হাসিনা বলেন, শিক্ষার্থীদের পড়তে হবে। পড়াশোনায় মন দিতে হবে। অভিভাবক–শিক্ষকদের উচিত শিক্ষার্থীদের দিকনির্দেশনা দেওয়া। সন্তান যাতে মাদকাসক্তিতে না যায়, জঙ্গিবাদে না জড়ায়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। ছেলেমেয়ে কার সঙ্গে মেশে, তা দেখতে হবে। পড়ালেখার পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে।

চলতি এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এ বছর পাসের হার ৬৮ দশমিক ৯১ শতাংশ। ফল গতবারের চেয়ে খারাপ হয়েছে। এর পাশাপাশি কমেছে জিপিএ ৫। গতবার এইচএসসি পরীক্ষায় পাসের হার ছিল ৭৪ দশমিক ৭০ শতাংশ। এবারের পাসের হার ৬৮ দশমিক ৯১ শতাংশ। দেখা যাচ্ছে, এবার ৫ দশমিক ৭৯ শতাংশ কম পাস করেছে।

বর্তমান সরকার শিক্ষাকে অনেক গুরুত্ব দিচ্ছে বলে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, শিক্ষাকে মানুষের কাছে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। বর্তমান বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে তা আধুনিক ও যুগোপযোগী করা হচ্ছে। সরকার শিক্ষাকে বহুমুখী করছে। শিক্ষার মান বাড়ানোর ওপর জোর দিতে হবে।