ফিলিস্তিনের মন্ত্রী ফাদি আল হাদামিকে ধরে নিয়ে গেছে ইহুদীবাদী ইসরায়েল

| সোহেল আহম্মেদ

ফিলিস্তিনের জেরুজালেম বিষয়ক মন্ত্রী ফাদি আল- হামিদকে ধরে নিয়ে গেছে ইহুদীবাদী সন্ত্রাসীদের অবৈধ রাষ্ট্র ইসরায়েল। এ নিয়ে চতুর্থবারের মতো তিনি গ্রেপ্তার হন।

শুক্রবার (৩ এপ্রিল) জেরুজালেম বিষয়ক মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানিয়েছে বলে আনাদোলু এজেন্সির খবরে বলা হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়, জেরুজালেমের সুওয়ানা পাড়ায় মন্ত্রীর বাড়িতে প্রবেশ করে তাকে গ্রেপ্তার করে ইসরায়েলি বাহিনী। গ্রেপ্তারের সময় মন্ত্রীর বাড়ির দরজা জানালা ভেঙে দিয়েছে বলেও বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।

বিবৃতিতে আরো বলা হয়েছে, মন্ত্রীকে ইসরায়েলের জিজ্ঞাসাবাদ কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়ার আগে
তার কাছে থাকা অর্থও জব্দ করেছে।

এর আগেও আরো তিনবার আল- হাদামিকে গ্রেপ্তার করা হয়। কিন্তু একবারও গ্রেপ্তারের কারণ বিষয়ে কোনো সদুত্তর দিতে পারেনি ইহুদিবাদী ইসরায়েলি বাহিনী।

ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষ বলছে, ইসরায়েল কর্তৃক দখলকৃত পূর্ব জেরুজালেমে ফিলিস্তিনি কর্মকর্তাদের এভাবে গ্রেপ্তার করা নিত্য-নৈমিত্তিক ব্যাপার।

এদিকে ফিলিস্তিনের প্রধানমন্ত্রী মুহাম্মাদ শাতায়িহ এক টুইট বার্তায় আল-হাদামির তাৎক্ষণিক মুক্তি দাবি করে বলেন, “যারা জেরুজালেমের জন্য কাজ করে ইসরায়েলিরা তাদেরকেই টার্গেট করে। এমনকি এমন গুরুতর মুহুর্তেও যখন আমরা কোভিড-১৯ থেকে আমাদের জনগণের জীবন বাঁচানোর জন্য কাজ করে যাচ্ছি। আজ সকালে, ইসরায়েলি দখলদার বাহিনী জেরুজালেম বিষয়ক মন্ত্রী ফাদি আল-হাদামিকে তার বাড়িতে অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করেছে। আমরা তার তাৎক্ষণিক মুক্তি দাবি করছি।”

উল্লেখ্য, আন্তর্জাতিক আইন ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীর এবং পূর্ব জেরুজালেমকে দখলকৃত অঞ্চল হিসাবে বিবেচনা করে এবং সেখানে সমস্ত ইহুদিবাদী কার্যক্রম অবৈধ বিবেচনা করে।

সূত্র: আনাদোলু এজেন্সি