বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে কটাক্ষের অভিযোগে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীকে বহি:ষ্কার

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে বিরুপ মন্তব্য করায় কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে সাময়িক বহি:ষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। ওই শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্রী।

সোমবার সন্ধ্যায় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিষ্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) এস. এম. আব্দুল লতিফ স্বাক্ষরিত অফিস আদেশে এই তথ্য নিশ্চিত করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। এছাড়া কেন স্থায়ী বহি:ষ্কার করা হবে না জানতে চেয়ে ৭ দিনের সময় দিয়ে ৩ সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিঠিও গঠন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বহিষ্কার হওয়া ওই শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৮-২০১৯ শিক্ষাবর্ষের এম. এ. বাংলা বিভাগে অধ্যয়নরত। সে যশোর সদর উপজেলার বাসিন্দা।

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর পরেশ চন্দ্র বর্মণ জানান, জনৈক সাজ্জাদ হোসেন সাজু নামের একটি ফেসবুক আইডিতে দেওয়া স্ট্যাটাস ‘কেউ পারিনি যা, পেরেছে করোনা। করোনা ভয়ে ভারত থেকে পালিয়ে এসে ঢাকায় গ্রেফতার বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনী মাজেদ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী’ এই স্ট্যাটাসে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যয়নরত ওই শিক্ষার্থী তার নিজের ব্যবহৃত ফেসবুক আইডি “কোলম ছন্দ” দিয়ে ওই স্ট্যাটাসে জাতির পিতাকে নিয়ে অবমাননাকর ও মর্যাদাহানিকর একটি মন্তব্য করেন। যা মূহুর্তে বিশ্বদ্যিালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সাধারণ মানুষের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি করে।

পরবর্তীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো. হারুন-উর-রশিদ আসকারী তাৎক্ষনিক ব্যবস্থা গ্রহনের নির্দেশ প্রদান করেন।

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো. হারুন-উর-রশিদ আসকারী জানান, ঘটনাটি অত্যন্ত দুঃখজনক। বিষয়টি আমি শোনার সাথে সাথে ওই শিক্ষার্থীকে বহি:ষ্কার করা হয়েছে। পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকলেও প্রক্টরকে প্রধান করে তিন সদস্য বিশিষ্ট কমিঠি গঠন করা হয়েছে। তদন্ত কমিটিকে আগামী ৭ দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদন হাতে পেলে তাকে স্থায়ী বহি;ষ্কারসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Previous post রাজধানী ঢাকার ৫২ এলাকা লকডাউন
Next post করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর অবস্থা কিছুটা ভালো