ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | নিজস্ব প্রতিনিধি


সরকারের মহাপরিকল্পনার অংশ হিসেবে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসকে লাভজনক পর্যায়ে নিতে আন্তর্জাতিক নতুন তিন রুটে বিমান চালুর উদ্যোগ নিয়েছে।

রোববার (২৫ আগস্ট) বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন সচিব মহিবুল হক বলেন, মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়ন হলে বিমানকে আরও লাভজনক অবস্থায় নিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে। বিমান এখন লাভজনক পর্যায়ে রয়েছে। যেসব দেশে বহুসংখ্যক বাংলাদেশি বাস করছেন, সেসব দেশে আন্তর্জাতিক রুট চালুর জন্য অগ্রাধিকার দেয়া হয়েছে।

সংশ্নিষ্টরা জানান, নতুন রুট খোঁজা এবং পুরনো রুট পুনরায় চালু হলে সেটি লাভজনক হবে কিনা- এসব নিয়ে কয়েক দফা বৈঠক হয়েছে। নতুন রুট হলে কতগুলো উড়োজাহাজ নতুন যুক্ত হবে সেটিও পরিকল্পনায় রাখা হয়েছে।

বন্ধ হয়ে যাওয়া দিল্লি রুটে সরাসরি ফ্লাইট চালু করা হয়েছে। বিমানের ঢাকা-চীনের গুয়ানজু, ঢাকা-দক্ষিণ কোরিয়া-জাপান রুট চালু হতে যাচ্ছে শিগগিরই। এ ছাড়া যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক, ইতালির রোম, শ্রীলংকার কলম্বো, ভারতের মুম্বাই, মালদ্বীপের মালে এবং সৌদি আরবের মদিনা শহরে বিমানের রুট চালুর উদ্যোগ নিয়েছে সরকার।

বিমানের লাভ-লোকসান নির্ধারণে স্বল্প, মাঝারি ও দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। রাজশাহী, সৈয়দপুর, যশোরসহ অন্যান্য বিমানবন্দরে সংস্কারের কাজ চলছে।

যাত্রীসেবার মান বাড়াতে নতুন উড়োজাহাজ কেনার উদ্যোগও নেয়া হয়েছে। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের বহরে যোগ হয়েছে অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ড্রিমলাইনার। সম্প্রতি তৃতীয় ড্রিমলাইনার গাঙচিল বাণিজ্যিক ফ্লাইট শুরু করেছে।