মহারাষ্ট্রের আওরঙ্গাবাদে মালগাড়ি ট্রেনের ধাক্কায় ১৫ পরিযায়ী শ্রমিক নিহত

ভারতের মহারাষ্ট্র রাজ্যের আওরঙ্গাবাদ জেলায় মালগাড়ির ধাক্কায় ১৫ পরিযায়ী শ্রমিক নিহত হয়েছেন। ওই ঘটনায় পাঁচজন গুরুতর আহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে কয়েকজন শিশুও রয়েছে। আজ (শুক্রবার) সকাল পাঁচটা নাগাদ ওই দুর্ঘটনা ঘটে।

সংবাদসংস্থা সূত্রে প্রকাশ, লকডাউনজনিত কারণে দীর্ঘদিন ধরে আটকে থাকার পরে ওই পরিযায়ী শ্রমিকরা পায়ে হেঁটে রেললাইন ধরে মহারাষ্ট্র থেকে মধ্য প্রদেশ ফিরছিলেন। এসময় তারা ক্লান্ত হয়ে, আওরঙ্গাবাদের কারমাড থানা এলাকায় রেললাইনের উপর ঘুমিয়ে পড়েন। সেখানেই আওরঙ্গাবাদ ও জালনার মধ্যে একটি মালগাড়ি ট্রেন তাঁদেরকে পিষে দিয়ে চলে যায়।

ওই ঘটনায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দুঃখ প্রকাশ করে বলেছেন, ‘মহারাষ্ট্রের আওরঙ্গাবাদে রেল দুর্ঘটনায় জানমালের ক্ষয়ক্ষতিতে আমি গভীরভাবে দুঃখিত। আমি রেলমন্ত্রী শ্রী পীযূষ গোয়ালের সাথে কথা বলেছি এবং তিনি পরিস্থিতি নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করছেন। যাবতীয় সম্ভাব্য সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।’

ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেসের সাবেক সভাপতি রাহুল গান্ধী এমপি বলেছেন, ‘মালগাড়িতে চাপা পড়ে শ্রমিক ভাই-বোনদের মৃত্যুর খবরে আমি হতবাক! আমাদের দেশ নির্মাতাদের সাথে যে আচরণ করা হচ্ছে তাতে লজ্জা পাওয়া উচিত। নিহতদের পরিবারের প্রতি আমার সমবেদনা এবং আহতদের দ্রুত সুস্থতার জন্য প্রার্থনা করছি।’

এদিকে, দেশজুড়ে করোনা সঙ্কটের মধ্যে আজ রাহুল গান্ধী ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘অভিবাসী শ্রমিক ও গরিব মানুষকে এসময় অর্থ দেওয়া প্রয়োজন। ছোট এবং মধ্যবিত্ত শ্রেণির আজ সাহায্যের প্রয়োজন। সরকারের একটি উপায় বের করা দরকার।’

সূত্র: পার্সটুডে