দিল্লির সিআরপিএফ ক্যাম্পে মহামারি করোনায় আক্রান্ত ১২২ জন

করোনায় আক্রান্ত হয়ে ব্যাটালিয়নে মারা গিয়েছিলেন এক সেনা। তার পর ১ হাজার জনকে কোয়রান্টিনে পাঠানো হয়। কিন্তু তাতেও সংক্রমণ ঠেকিয়ে রাখা সম্ভব হল না দিল্লির ময়ূরবিহারের সিআরপিএফ ক্যাম্পে। এখনও পর্যন্ত ১২২ জনের করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। বিষয়টি নিয়ে অত্যন্ত উদ্বেগে রয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।
পূর্ব দিল্লির ওই ক্যাম্পে রয়েছে সিআরপিএফ-এর ৩১ নম্বর ব্যাটালিয়ন। বেশ কয়েক দিন আগেই ওই ব্যাটালিয়নেরই এক জওয়ান করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যান। সিআরপিএফের ওই সদস্য করোনার বিরুদ্ধে প্রত্যক্ষ লড়াইয়ে শামিল ছিলেন। নার্সিং অ্যাসিস্ট্যান্ট হিসাবে তিনি কাজ করছিলেন তিনি। গত ১৭ এপ্রিল তার দেহে করোনার উপসর্গ দেখা দেয়। ২১ এপ্রিল পরীক্ষায় তাঁর করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। তাকে ভর্তি করা হয় রাজীব গান্ধী হাসপাতালে। এরপর একে একে ওই ব্যাটালিয়নের সদস্যরা করোনায় আক্রান্ত হতে থাকেন।
ওই ব্যাটালিয়নের ৪৫ জন সৈন্যের দেহে করোনার অস্তিত্ব ধরা পড়তেই সেখানকার এক হাজার জনকে কোয়রান্টিনে পাঠানো হয়। এই মুহূর্তে এক ধাক্কায় সেই সংখ্যাটা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১২২। সিআরপিএফ সূত্রে খবর, ইতিমধ্যেই ১২২ জনের কোভিড রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। আরও ১০০ জনের রিপোর্টের অপেক্ষায় রয়েছে তারা। কীভাবে এতটা সংক্রমণ ছড়াল, সিআরপিএফ-এর ডিজি এপি মাহেশ্বরীর কাছে তার ব্যাখ্যা চেয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।

Previous post মুন্সীগঞ্জে করোনায় পুলিশ কর্মকর্তাসহ নতুন আক্রান্ত ৮
Next post ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত আরও ২৩২ পুলিশ সদস্য

Leave a Reply