শ্রমিকলীগ নেতার নেতৃত্বে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ত্রাণের জন্য বিক্ষোভ

করোনাভাইরাসের কারণে কর্মহীন হয়ে পড়া সাধারণ লোকজন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলায় ত্রাণ সহায়তা চেয়ে বিক্ষোভ মিছিল করেছেন।

মঙ্গলবার (২১ এপ্রিলে) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে সরাইল উপজেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি মো. ইউনূছ মিয়া ওরফে ইনুর নেতৃত্বে স্থানীয় সৈয়দটুলা গ্রামের লোকজন বিক্ষোভ মিছিল বের করেন।

মিছিলটি নিয়ে তারা উপজেলা পরিষদের সামনে দুপুর ১২টা পর্যন্ত অবস্থান করে ত্রাণ সহয়তার দাবিতে ‘আর কত থাকব উপবাস, খাবার দে’ লেখাযুক্ত ব্যানার নিয়ে নানা স্লোগান দেন।

বিক্ষোভকারীদের একজন বলেন, সৈয়দটুলা গ্রামের ৬নং ওয়ার্ডে সরকারিভাবে কোনো সহায়তা করা হয়নি। তাদের ঘরে খাবার নেই। মানবেতর দিন কাটছে সবার

শ্রমিক লীগ নেতা মো. ইউনূছ মিয়া বলেন, করোনভাইরাসের প্রভাবে সৈয়দটুলা গ্রামের ৬নং ওয়ার্ডের বাসিন্দাদের অনেকেই কর্মহীন হয়ে পড়েছেন। আমাদের ওয়ার্ডে সরকারি কোনো ত্রাণ আসেনি। এই ওয়ার্ডে হতদরিদ্র ও শ্রমিক রয়েছেন। আমাদের সবার কাজকর্ম বন্ধ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তো আমাদের জন্য কিছু পাঠিয়েছেন, আমাদের এলাকায় তো এগুলো আসেনি। সেজন্য আমরা বিক্ষোভ করেছি। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আমাদের ত্রাণ দেয়ার ব্যাপারে আশ্বস্ত করার পর আমরা চলে এসেছি।

এ ব্যাপারে সরাইল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইইএনও) আবু সালেহ মো. মুসা বলেন, ত্রাণের জন্য বিক্ষোভ করা হয়নি। তাদেরকে বলা হয়েছে সরকার মাথাপিছু তিন হাজার করে টাকা ও এক বস্তা চাল বরাদ্দ দিয়েছে, এগুলো তারা পাচ্ছে না। শ্রমিক লীগ নেতা ইনু এই গুজব ছড়িয়ে তাদেরকে নিয়ে এসেছে।

Previous post সৌদির ইতিহাসে মৃত্যুদণ্ডের সর্বোচ্চ রেকর্ড ২০১৯ সালে, অর্ধেকই বিদেশি
Next post অসহায় ফিলিস্তিনি পথচারীকে গুলিবিদ্ধ করলো ইহুদিবাদী ইসরাইলের সেনা