ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম | আন্তর্জাতিক ডেস্ক


ভারতীয় জুলুম-নির্যাতনের বিরুদ্ধে সর্বাত্মক প্রতিরোধের ঘোষণা দিয়েছেন কাশ্মীরের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হুররিয়ত কনফারেন্সের নেতা সৈয়দ আলী শাহ গিলানি।

এতে প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তানেরও সহায়তা চান তিনি।

ডন উর্দূর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গৃহবন্দি অবস্থা থেকে রোববার (২৫ আগস্ট) কাশ্মীরি জনগণের প্রতি লেখা এক চিঠিতে ভারতের বিরুদ্ধে প্রতিরোধের ডাক দেন শাহ গিলানি।

কাশ্মীরের স্বায়ত্তশাসন বাতিল করে অঞ্চলটিকে দুই ভাগ করে ফেলার পর থেকেই গৃহবন্দি অবস্থায় রয়েছেন এই হুররিয়ত নেতা।

জনগণের প্রতি চিঠিতে সৈয়দ আলী গিলানি বলেন, কাশ্মীরকে ভারত সরকার অবরুদ্ধ করে একটি জেলখানায় পরিনত করেছে। সবধরণের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করার পরও কাশ্মীরের জনসাধারণ ভারতীয় জুলুমের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়িয়েছে। ভারতীয় বাহিনীর গুলির মুখেও কাশ্মীরি জনগণ প্রতিবাদ করছে।

তিনি বলেন, কাশ্মীরের খবর প্রচারে গণমাধ্যমকর্মীদের বাধা দিয়ে ভারত সরকার কাপুরুষোচিত আচরণ করছে।

‘জম্মু-কাশ্মীরের জনগণের কাছে আমাদের আন্তরিক আবেদন, এই সংকটময় মুহুর্তে আমাদের অবশ্যই প্রতিরোধ অব্যাহত রাখতে হবে। সাধ্য অনুযায়ী, আমাদের সবারই এই প্রতিরোধে অংশ নেয়া উচিত।’ বলেন হুররিয়ত নেতা।