ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) ২০১৭-১৮ অর্থবছরের জন্য তিন হাজার ৩শ’ ৩৭ কোটি ৬৭ লাখ টাকার বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে।

নগর ভবনে মেয়র মোহাম্মদ হানিফ সম্মেলন কক্ষে ডিএসসিসি মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন সোমবার এ বাজেট ঘোষণা করেন।

সাঈদ খোকন বলেন, গত বছর ১৬-১৭ অর্থবছরে হোল্ডিং ট্যাক্স থেকে ৫০০ কোটি টাকা আয়ের হিসাব করা হলেও হাইকোর্টে রিটের কারণে তা সম্ভব হয়নি। বাজেটে উন্নয়ন ব্যয় শতকরা ৭৭ ভাগ। নিজস্ব উৎস থেকে আয় ধরা হয়েছে এক হাজার ৬৪ কোটি ৭৮ লাখ টাকা।

অন্যান্য খাতে ৭ কোটি ৮৬ লাখ এবং সরকারি ও বৈদেশিক উৎস থেকে ২ হাজার ১২৮ কোটি ৬৭ লাখ টাকা আয় হবে বলে বাজেটে প্রস্তাব করেছে ডিএসসিসি।

২০১৭-১৮ অর্থবছরে উন্নয়নমূলক কাজে ডিএসসিসি সর্বমোট ২ হাজার ৫৬৮ কোটি ৪১ লাখ টাকা ব্যয় হবে; যে টাকা নিজস্ব খাত থেকে ৬২৯ কোটি ৮২ লাখ এবং ১ হাজার ৯৩৮ কোটি ৫৯ লাখ টাকা প্রকল্প সহায়তা থেকে সংগ্রহ করা হবে।

প্রস্তাবনার ব্যয় বিবরণী অনুযায়ী, বেতন ভাতায় ২৫০ কোটি, বিদ্যুৎ, জ্বালানি, পানি ও গ্যাসে ১৪৩ কোটি ৫০ লাখ, মেরামত ও রক্ষণাবেক্ষণে ২৬ কোটি ২৫ লাখ, মশক নিধনে ২৫ কোটি ৬০ লাখ, সরবরাহে ৩২ কোটি ৪৭ লাখ টাকা ব্যয় করবে ডিএসসিসি। ব্যয়ের বড় অংশ সড়ক ও ট্রাফিক অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ ও উন্নয়নে ব্যয় হবে। এ খাতে ১ হাজার ১৩০ কোটি টাকা ব্যয় হবে।

এছাড়া ভৌত কাঠামো নির্মাণ, উন্নয়ন ও রক্ষণাবেক্ষণে ৩৭৪ কোটি ৮০ লাখ, বিনোদনমূলক উন্নয়নে ১৭৫ কোটি ৫০ লাখ, পরিবেশ উন্নয়নে ১৯২ কোটি ৫৬ লাখ টাকা ব্যয় হবে।

ডিএসসিসির বাজেট অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডিএসসিসির প্রধান নির্বাহী খান মোহাম্মদ বিল্লাল, প্রধান সম্পত্তি কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম ও প্রধান স্বাস্থ্যকর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সালাহ উদ্দিনসহ অন্যান্যরা।

উল্লেখ্য, গত অর্থবছরে ৩ হাজার ১৮৩ কোটি ৬৫ লাখ টাকার বাজেট ঘোষণা করেছিল ডিএসসিসি।