Breaking News

তালেবানের সাথে আলোচনায় নমনীয় হতে আফগান দলকে পরামর্শ

মার্কিন মদদপুষ্ট আফগানিস্তান সরকারের সিনিয়র নেতৃত্ব দোহার তাদের দলকে তালেবানের সাথে আলোচনায় নমনীয় হতে বলেছে। দেশের সঙ্ঘাত অবসানের সুযোগটি গ্রহণ করার জন্য এই নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে বলে হাই কাউন্সিল ফর ন্যাশনাল রিকনসিলিয়েশনের চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আবদুল্লাহ জানিয়েছেন।

তিনি পররাষ্ট্র নীতি গবেষণা গ্রুপ ইনস্টিটিউট অব স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজ ইসলামাবাদে বক্তৃতাকালে বলেন, আমি ও প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি আমাদের দলকে আপস করার জন্য ধৈর্যশীল হতে বলেছি, সুযোগটি হাতছাড়া না করতে বলেছি, সময় অপচয় না করতে বলেছি।

শান্তিপ্রক্রিয়া ও দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক নিয়ে আলোচনার জন্য তিন দিনের পাকিস্তান সফরে গিয়ে আবদুল্লাহ তার দেশের ভবিষ্যত নিয়ে আশাবাদী বলেও জানান।

তিনি দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলেন, নতুন শান্তিপূর্ণ ভবিষ্যতের সম্ভাবনা দেখা যাওয়ার সময় আমি পাকিস্তান সফর করছি।

আফগানিস্তান ও আমেরিকা দীর্ঘ দিন ধরে বলে আসছিল যে তালেবান নেতৃত্ব পাকিস্তানেই বসবাস করে আসছে। তারা তালেবানকে আলোচনার টেবিলে আনার জন্য পাকিস্তানের ওপর চাপ সৃষ্টি করে আসছিল।

তালেবানের সাথে আলোচনায় এখন অগ্রগতি হচ্ছে। এর ধারাবাহিকতায় ২৯ ফেব্রুয়ারি তালেবানের সাথে আমেরিকা শান্তিচুক্তি সই করে। আর এখন দোহায় তালেবানের সাথে মার্কিন মদদপুষ্ট আফগানিস্তানের প্রতিনিধিদলের আলোচনা চলছে। এরই প্রেক্ষাপটে আফগানিস্তান ও পাকিস্তানের মধ্যকার সম্পর্কেরও উন্নতি হচ্ছে।

আলোচনার ব্যবস্থা করার জন্য পাকিস্তানকে ধন্যবাদ দেন আবদুল্লাহ। তিনি বলেন, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান গত শুক্রবার আফগান প্রেসিডেন্ট ঘানিকে ফোন করেছিলেন। তিনি বলেন, দোহা আলোচনা সফল হওয়ার জন্য সহিংসতা হ্রাস খুবই তাৎপর্যপূর্ণ বিষয়।

পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কোরেশি বলেন, আফগানিস্তানের সার্বভৌমত্ব ও স্বাধীনতার প্রতি পাকিস্তানের সমর্থন রয়েছে।

কোরেশি ও আবদুল্লাহ উভয়েই আঞ্চলিক বাণিজ্য ও উন্নয়নের বিপুল সম্ভাবনা কাজে লাগানোর ওপর জোর দেন। উভয়ে বলেন, পাকিস্তানের সাথে শান্তি ও বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক আফগানিস্তানের জন্য কল্যাণকর হবে।

সূত্র: সাউথ এশিয়ান মনিটর ও ভয়েস অব আমেরিকা

About |

Check Also

করোনার সংক্রমণ কমলে মুসলিম বিরোধী সিএএ কার্যকরের ঘোষণা হিন্দুত্ববাদী নাড্ডার

বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের সংক্রমণ কমে গেলে মুসলিম বিরোধী ‘সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন’ (সিএএ) কার্যকর করা …