অ্যাম্বুলেন্সেই মারা গেলেন করোনা আক্রান্ত ব্যবসায়ী

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত এক মুদি ব্যবসায়ীকে কুমিল্লা থেকে ঢাকায় নেওয়ার পথে অ্যাম্বুলেন্সে তার মৃত্যু হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে ঢাকায় নেওয়ার পথে চান্দিনা এলাকায় তিনি মারা যান।

মারা যাওয়া ব্যক্তির নাম জামাল হাজারী (৪৫)। তিনি কুমিল্লার দেবীদ্বার পৌরসভার চাঁপা নগর এলাকার বাসিন্দা।

এ নিয়ে দেবীদ্বার উপজেলার চারজন করোনায় মারা গেলেন।

দেবীদ্বার উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আহম্মদ কবীর এ তথ্যে নিশ্চিত করেছেন।

জামাল হাজারীর ভাগ্নে মো. বাছির আহমেদ বলেন, ‘মামার (জামাল হাজারী) ৫ মে থেকে জ্বর, গলাব্যথা ও শ্বাসকষ্ট বেড়ে যায়। দেবীদ্বার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নমুনা সংগ্রহকারীরা তার নমুনা সংগ্রহ করেন। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে থাকে। এরপর বিকেলে তাকে কুমিল্লা শহরে নেওয়ার জন্য রওনা হই। কুমিল্লায় যাওয়ার পথেই খবর পাই মামার করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এরপর তাকে বাড়িতে ফিরিয়ে আনা হয়। পরে রাত ৯টার দিকে তাকে অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকার দিকে রওনা হই। চান্দিনার কাছে পৌঁছালে অ্যাম্বুলেন্সেই তিনি মারা যান’

কুমিল্লা জেলায় গতকাল রাত পর্যন্ত ১২২ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে।