ফ্রান্স সরকারের ধর্মীয় কড়াকড়ি অব্যাহত শুধু মুসলিমদের ওপর!

করোনাকালেও ইহুদি-খৃষ্টানদের উৎসবে ছাড় দিলেও ধর্মীয় বিষয়ে মুসলিমদের ওপর কড়াকড়ি অব্যাহত রেখেছে ফ্রান্স সরকার। ঈদ ২৪ বা ২৫ তারিখ হলেও এটি বিবেচনায় না নিয়ে ২৯ তারিখ থেকে লকডাউন তোলার ঘোষণা দিয়েছে সরকার। এনিয়ে ফ্রান্সের মুসলিমরা সরকারের কঠোর সমালোচনা করছেন।

দেশটির একাধিক মুসলিম সংগঠন সরকারের এই নীতির বিরোধিতা করে নিন্দা জানিয়েছে। ফ্রান্সের একটি তুর্কি মুসলিম সংগঠন জানিয়েছে, লকডাউন তুলে নিতে এমন দিন নির্বাচন করা হয়েছে, যাতে স্পষ্ট বোঝা যায় সরকার ইহুদি-খৃষ্টানদের উৎসবের প্রতি শ্রদ্ধাশীল এবং মুসলিমদের ধর্মীয় বিষয়ে ঠিক তার বিপরীত।

শুক্রবার ফরাসি ইসলামিক সোসাইটি-সহ কয়েকটি মুসলিম সংগঠন জানায়, প্রধানমন্ত্রী ফরওয়ার্ড ফ্লিপ ঘোষণা করেছেন, আগামী ২৯ মে থেকে ২ জুনের মধ্যে ধীরে ধীরে লকডাউন তুলে নেওয়া হবে। আগামী ২৪ মে ঈদুল ফিতর হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। অতএব, লকডাইন শিথিলের সময় আরেকটু এগিয়ে আনা যেতো। মুসলিম সংগঠনগুলো সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসে সরকারকে নতুন তারিখ নির্ধারণের আহ্বান জানিয়েছেন।

Previous post ভারত পাকিস্তানের বিরুদ্ধে যুদ্ধপ্রস্তুতি নিচ্ছে : ইমরান খান
Next post করোনা ভ্যাকসিন পরীক্ষায় শতভাগ সাফল্য পেয়েছে চীন