১৭ দিনেও পাননি করোনার রিপোর্ট, উপসর্গ নিয়ে বিদেশির মৃত্যু

চট্টগ্রামে করোনা ভাইরাসের (কোভিড-১৯) উপসর্গ নিয়ে ফিলিপাইনের এক নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে।

করোনা প্রাদুর্ভাবের পর চট্টগ্রামে এই প্রথম কোনো বিদেশি নাগরিক করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেলেন।

তবে ওই বিদেশি নাগরিক করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দেয়ার গত ১৭ দিনেও এর ফল জানতে পারেননি।

শুক্রবার (১৯ জুন) রাতে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. আফতাবুল ইসলাম।

মৃত ফিলিপাইনের নাগরিকের নাম রুয়েল এসত্রেলে কাতান (৫০)। তিনি চট্টগ্রাম বন্দরে একটি বেসরকারি অপারেটর প্রতিষ্ঠানের শিপ প্ল্যানার পদে কর্মরত ছিলেন।

ডা. আফতাবুল ইসলাম বলেন, করোনা উপসর্গ নিয়ে গত ১৬ দিন ধরে ফিলিপাইনের একজন নাগরিক আমাদের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। করোনা পরীক্ষার জন্য ওনার নমুনা নেয়া হয়েছিল। নমুনা ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। তবে রেজাল্ট এখনও আসেনি। তবে এরই মধ্যে গতকাল রাতে তার মৃত্যু হয়।

জানা যায়, শুক্রবার রাত ১০টার দিকে মারা যাওয়া রুয়েল এসত্রেলে কাতান চট্টগ্রাম বন্দরে জাহাজ থেকে কনটেইনার ওঠানামায় নিয়োজিত বেসরকারি একটি অপারেটর প্রতিষ্ঠানের শিপ প্ল্যানার পদে কর্মরত ছিলেন। তিনি চট্টগ্রাম নগরের হালিশহর হাউজিং এলাকায় থাকতেন। তার পরিবার ফিলিপাইনে বসবাস করেন।

Previous post পিপিই-কিট ক্রয়ে দুর্নীতির দায়ে জিম্বাবুয়ের স্বাস্থ্যমন্ত্রী গ্রেপ্তার
Next post চলতি মাসের শেষে দেশে বন্যার আশঙ্কা