কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতের বিরুদ্ধে ওআইসিতে প্রস্তাব তুললো পাকিস্তান; বাঁধা দিলো আরব আমিরাত

সংযুক্ত আরব আমিরাতের বাঁধার কারণে ইসলামিক সহযোগিতা সংস্থায়(ওআইসি) কাশ্মীরিদের দুর্দশা ও ভারতে ক্রমবর্ধমান ইসলামবিদ্বেষ নিয়ে আলোকপাত করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছে পাকিস্তান। ওআইসির স্থায়ী প্রতিনিধিদের(পিআর) ভার্চ্যুয়াল বৈঠকে পাকিস্তান এ বিষয়টি তোলার চেষ্টা করেও সংযুক্ত আরব আমিরাতের বাঁধার মুখে সেটি আর সম্ভব হয়নি।

বৈঠকে সভাপতিত্ব করে সংযুক্ত আরব আমিরাত। গত ১৯ মে ওই বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। ভারতীয় মিডিয়া সানডেগার্ডিয়ানলাইভে এমন খবর জানা গেছে।

ভারতে ইসলামবিদ্বেষের ক্রমবৃদ্ধির ঘটনায় জাতিসংঘে নয়াদিল্লির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে একটি ছোট্ট অনানুষ্ঠানিক কার্যকরী গ্রুপ গঠনের প্রস্তাব দিয়েছিলেন ওআইসিতে পাকিস্তানের স্থায়ী প্রতিনিধি মুনির খান।

কিন্তু পাকিস্তানের এই দাবি প্রত্যাখ্যান করেছে আরব আমিরাত। মালদ্বীপও এ ক্ষেত্রে জোরালোভাবে পাকিস্তানের বিরোধিতা করেছে।

সানডে গার্ডিয়ান জানায়, পাকিস্তান এভাবে উপেক্ষিত হওয়ার পর পরিস্থিতি এমন দাঁড়িয়েছে যে মনে হচ্ছে ওআইসিতে ভারতেরও একটি ভেটো ক্ষমতা রয়েছে।

৫৭ মুসলমান সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশের সংস্থা ওআইসির প্রধান কার্যালয় সৌদি আরবের জেদ্দায়। জাতিসংঘ ও ইউরোপীয় ইউনিয়নেও তাদের স্থায়ী প্রতিনিধি রয়েছে।