দিনাজপুরে ২৪ ঘন্টায় ৬০০ জন হোম কোয়ারেন্টিনে

ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম । নিজস্ব প্রতিনিধি


করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রতিরোধে দিনাজপুর জেলায় প্রতিদিনই বেড়ে চলেছে হোম কোয়ারেন্টিনের সংখ্যা। এর মধ্যে গত ২৪ ঘন্টায় জেলার ৬০০ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে নেয়া হয়েছে। অপরদিকে হোম কোয়ারেন্টিনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় ১ হাজার ২৩৬ জনকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।

দেশের অন্যান্য জেলার মতো দিনাজপুরেও করোনা ভাইরাসে পজিটিভের সংখ্যা বেড়েছে। জেলায় রোববার সন্ধ্যা পর্যন্ত ১ শিশুসহ ১১ জনের শরীরে করোনা ভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে। এছাড়াও ২৪ ঘন্টায় ৬০০ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে।

দিনাজপুরের সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে জানা গেছে, শনিবার (১৮ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৭টা থেকে রোববার (১৯ এপ্রিল) সন্ধ্যা পর্যন্ত পর্যন্ত জেলায় সর্বোচ্চ ৬০০ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। এদের মধ্যে বেশিরভাগ ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ, চট্টগ্রামসহ অন্যান্য জেলা থেকে আগত।

এছাড়াও শনিবার ১৮ এপ্রিল সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলায় ২ হাজার ৮৬১ জন হোম কোয়ারেন্টিনে ছিলেন। দিনাজপুর সদর উপজেলায় নতুন ১৫ জনসহ মোট ৫১৬ জন, বিরল উপজেলায় নতুন ১৮ জনসহ ৮০ জন, বোচাগঞ্জ উপজেলায় নতুন ৮ জনসহ ২০৭ জন, কাহারোল উপজেলায় পূর্বের ৭৭ জন, বীরগঞ্জ উপজেলায় নতুন ২৮ জনসহ মোট ১৮১ জন, খানসামা উপজেলায় পূর্বের ১২৩ জন, চিরিরবন্দর উপজেলায় পূর্বের ৩১ জন, পার্বতীপুর উপজেলায় পূর্বের ৩৯৮ জন, ফুলবাড়ীতে নতুন ৫২৮ জনসহ মোট ৭০৯ জন, বিরামপুরে নতুন ৩ জনসহ ৫০০ জন, নবাবগঞ্জে পূর্বের ২৬৯ জন, হাকিমপুরে পূর্বের ৮১ জন ও ঘোড়াঘাটে পূর্বে ২৮৯ জন হোম কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন।

এছাড়াও ফুলবাড়ী উপজেলায় ৪২ জনকে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। অপরদিকে ইতিপূর্বে হোম কোয়ারেন্টাইনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় ১ হাজার ২৩৬ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইন থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।